• বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ১৭, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:২৭ রাত

জিয়াউর রহমানকে ‘প্রথম রাষ্ট্রপতি’ বলায় চাকরি হারালেন রেজিস্ট্রার

  • প্রকাশিত ০২:৪৪ দুপুর মে ২৯, ২০১৮
  • সর্বশেষ আপডেট ০২:৪৫ দুপুর মে ২৯, ২০১৮
ea8183062f3bf2b7fafe939d319e6-5b0c346ed1db9-1527583461381.jpg
সাবেক ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার সৈয়দ রেজাউর রহমান

২০১৬ সালের ১ জুলাই তৎকালীন উপাচার্য আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিকের সময় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাবাষির্কীর স্মরণিকায় জিয়াউর রহমানকে প্রথম রাষ্ট্রপতি উল্লেখ করা হয়।

সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানকে বাংলাদেশের প্রথম রাষ্ট্রপতি উল্লেখ করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) প্রতিষ্ঠাবাষির্কীর স্মরণিকা ছাপানোর দায়ে তৎকালীন ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার সৈয়দ রেজাউর রহমানকে চাকরিচ্যুত করা হয়েছে। তিনি ওই স্মরণিকার প্রকাশনার দায়িত্বে ছিলেন। সোমবার (২৮ মে) বিকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের নবাব নওয়াব আলী চৌধুরী সিনেট ভবনে সিন্ডিকেট সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

২০১৬ সালের ১ জুলাই তৎকালীন উপাচার্য আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিকের সময় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাবাষির্কীর স্মরণিকায় জিয়াউর রহমানকে প্রথম রাষ্ট্রপতি উল্লেখ করা হয়।

সোমবারের সিন্ডিকেট সভায় একটি জাতীয় পত্রিকায় ‘জ্যোতির্ময় জিয়া’ শিরোনামের এক নিবন্ধে ইতিহাস বিকৃতির অভিযোগে সাময়িক অব্যাহতি দেওয়া মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষক মোর্শেদ আনাম খানের ব্যাপারে উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ সামাদকে প্রধান করে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

এসব সিদ্ধান্ত নেওয়ার বিষয়  নিশ্চিত করে উপাচার্য অধ্যাপক ড. আখতারুজ্জামান বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সভায় শৃঙ্খলা কমিটির সুপারিশের ভিত্তিতে সাবেক রেজিস্টারকে চাকরিচ্যুত করা হয়েছে। একইসঙ্গে মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষকের বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য পাঁচ সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।’

২০১৬ সালের ১ জুলাই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাবাষির্কীর স্মরণিকায় সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানকে বাংলাদেশের প্রথম রাষ্ট্রপতি উল্লেখ করায় তখন ছাত্রলীগ জোরালোভাবে এর প্রতিবাদ জানায়।

অন্যদিকে এ বছরের ২৬ মার্চে একটি জাতীয় দৈনিক পত্রিকায় বঙ্গবন্ধুকে অবমাননা করে নিবন্ধ লেখার অভিযোগে বিশ্ববিদ্যালয়ের মাকেটিং বিভাগের শিক্ষক অধ্যাপক মোর্শেদ হাসান খানকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

সিন্ডিকেট সভায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপার্চাযের সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক নাসরীন আহমাদ ও উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ সামাদসহ সিন্ডিকেটের অন্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।