• বৃহস্পতিবার, আগস্ট ২২, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:২২ রাত

সিইসির সঙ্গে মতবিরোধ নেই : নির্বাচন কমিশনার

  • প্রকাশিত ০৯:৪২ রাত আগস্ট ১৩, ২০১৮
EC Office
ইলেকশন কমিশন কার্যালয় (ফাইল ছবি)। ছবি: ঢাকা ট্রিবিউন

“কোনো নির্দিষ্ট বিষয়ে আমাদের দ্বিমত হতেই পারে। কিন্তু তা মতবিরোধ হিসেবে গণ্য করা যায় না।”

প্রধান নির্বাচন কমিশনারের (সিইসি) সঙ্গে বিভিন্ন ক্ষেত্রে দ্বিমত পোষণ করলেও, নিজেদের মধ্যে কোনও মতবিরোধ নেই বলেই জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার। তিনি আরও বলেছেন, আগামী জাতীয় নির্বাচনকে অবাধ ও সুষ্ঠু করতে বর্তমান কমিশন বদ্ধপরিকর। সোমবার (১৩ আগস্ট) নির্বাচন ভবনে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলোচনাকালীন এ কথা জানান মাহবুব তালুকদার।

সম্প্রতি ‘নির্বাচনে অনিয়ম হবেনা -এর নিশ্চয়তা দেওয়া যায়না’- এমন মন্তব্য করে সমালোচনার মুখে পড়েন সিইসি কেএম নূরুল হুদা। এ বক্তব্যের পর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের সংযতভাবে সিইসিকে কথা বলার পরামর্শ দেন। 

ওইদিনই চার নির্বাচন কমিশনার জানান, তারা সিইসির বক্তব্যের সঙ্গে একমত নন। পরদিন আইনমন্ত্রী এডভোকেট আনিসুল হক সিইসিকে অভয় দেন এবং দেশবাসীর ওপর আস্থা রাখতে বলেন। এসব বক্তৃতার প্রেক্ষিতে সিইসির সঙ্গে নির্বাচন কমিশনারদের দূরত্বের বিষয়টি সংবাদধ্যমে আসে। 

এরই প্রতিক্রিয়ায় গতকাল নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার বলেন, “নির্বাচন কমিশন সম্পর্কে নানা রকম দ্বিধাদ্বন্দ্বের সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে সংবাদমাধ্যমে। পত্রিকায় এমন সংবাদও বেরিয়েছে যে সিইসি ও আমার মধ্যে মতবিরোধ রয়েছে। কিন্তু আমাদের মধ্যে কোনো মতবিরোধ আছে বলে আমি মনে করিনা। কোনো নির্দিষ্ট বিষয়ে আমাদের দ্বিমত হতেই পারে। কিন্তু তা মতবিরোধ হিসেবে গণ্য করা যায় না।” 

এ ছাড়াও আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন সুষ্ঠু করতে বর্তমান নির্বাচন কমিশন বদ্ধপরিকর উল্লেখ করে মাহবুব তালুকদার আরও বলেন, পাঁচজন নির্বাচন কমিশনার মিলে একক সত্ত্বা। 

তিনি আরও বলেন, “আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ, অংশগ্রহণমূলক ও গ্রহণযোগ্য হবে বলে বিশ্বাস করি আমি। আমরা সকল কমিশনার দেশবাসীকে একযোগে একটি ‘ভাল’ নির্বাচন উপহার দিতে বদ্ধপরিকর। সাংবিধানিকভাবে আমাদের দায়িত্ব-কর্তব্য পালনে আমরা সচেতন রয়েছি।”