• রবিবার, জুলাই ২১, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০২:১৮ রাত

রোহিঙ্গা নির্যাতনের তথ্য সংগ্রহে বাংলাদেশে আসছে আইসিসি প্রতিনিধি দল

  • প্রকাশিত ০৭:৩০ রাত মার্চ ৫, ২০১৯
রোহিঙ্গা
মিয়ানমার সেনাবাহিনীর সহিংসতার মুখে প্রায় সাড়ে সাত লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে আসে। ছবি: সৈয়দ জাকির হোসেন/ঢাকা ট্রিবিউন

তারা সাত দিন অবস্থান করে প্রয়োজনীয় তথ্য সংগ্রহ করবে এবং এরপর তাদের প্রতিবেদন আদালতে জমা দেবে

মিয়ানমারের রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠির ওপর নির্যাতনের তথ্য সংগ্রহ করতে প্রাক অনুসন্ধানে বাংলাদেশে আসছে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের (আইসিসি) একটি প্রতিনিধি দল। 

বুধবার (৬ মার্চ) সাত সদস্য বিশিষ্ট দলটি ঢাকায় পৌঁছাবে। তারা সাত দিন অবস্থান করে প্রয়োজনীয় তথ্য সংগ্রহ করবে এবং এরপর তাদের প্রতিবেদন আদালতে জমা দেবে।

প্রতিবেদন জমার পরে রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে মিয়ানমার সরকারের অপরাধের পূর্ণ তদন্ত হবে কিনা সেটি নির্ধারনের জন্য আদালতে শুনানি হবে।

আইসিসি প্রতিনিধি দল কক্সবাজারে রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন করবে এবং ঢাকায় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ শাহরিয়ার আলম এবং পররাষ্ট্র সচিব এম শহীদুল হকের সঙ্গে বৈঠক করবেন। 

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা বলেন, ‌"আমরা তাদেরকে সব ধরনের সহায়তার জন্য প্রস্তুত আছি। তারা যে সহযোগিতা চায় সেটি সরবরাহ করা হবে।’"

তিনি বলেন, এটি একটি অপারেশনাল পর্যায়ের প্রতিনিধি দল এবং অনুসন্ধানের ওপর ভিত্তি করে তারা আদালতে প্রতিবেদন জমা দেবেন।

এর আগে গত ফেব্রুয়ারিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং আইসিসির প্রধান কৌসুলি ফেতো বেনসুদার মধ্যে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

ফেতো বেনসুদা গত এপ্রিলে রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে অপরাধের বিচার করার অধিকার আইসিসির আছে কিনা তা জানতে চেয়ে একটি আবেদন করেন। এর ওপর শুনানির পর গত সেপ্টেম্বরে আদালত সিদ্ধান্ত দেয় যে তার এই অধিকার আছে।

বাংলাদেশে বর্তমানে ১০ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা অবস্থান করছে। এরমধ্যে সাত লাখ রোহিঙ্গা প্রাণ বাঁচানোর জন্য ২০১৭ এর আগস্ট থেকে রাখাইনের নিজ ভূমি ত্যাগ করে বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে। ২০১৭ থেকে গণহত্যার মতো জঘন্য অপকর্মের মাধ্যমে মিয়ানমার মিলিটারি রোহিঙ্গাদের মাতৃভূমি থেকে বাংলাদেশে পালিয়ে আসতে বাধ্য করে।