• বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ১৭, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৩:১০ বিকেল

বাবা-মায়ের ওপর অভিমান করে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রীর গলায় ফাঁস

  • প্রকাশিত ১১:২৩ সকাল মে ১৯, ২০১৯
আত্মহত্যা
প্রতীকী ছবি

মিরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (ওসি, তদন্ত) বোরহান উদ্দিন এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, ‘বাবা মায়ের ওপর অভিমান করে স্কুল ছাত্রী শ্যামলী গলায় দঁড়ি দিয়ে আত্নহত্যা করে।’

কুষ্টিয়ার মিরপুরে বাবা-মায়ের ওপর অভিমান করে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে পঞ্চম শ্রেণির এক ছাত্রী। 

১৮ মে, শনিবার বিকাল ৫টার দিকে মিরপুরের নওদা কুর্শা গ্রাম থেকে ওই ছাত্রীর লাশ উদ্ধার করা হয়। 

নিহত স্কুল ছাত্রীর নাম শ্যামলি (১১)। শ্যামলি নওদা কুর্শা গ্রামের জামিরুল ইসলামের মেয়ে ও স্থানীয় স্কুলের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী।  

মিরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (ওসি, তদন্ত) বোরহান উদ্দিন এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, “বাবা মায়ের ওপর অভিমান করে স্কুল ছাত্রী শ্যামলী গলায় দঁড়ি দিয়ে আত্নহত্যা করে।”

এদিকে মিরপুরের আমবাড়িয়া ইউনিয়নের শাকদহ চর গ্রাম থেকে স্বপ্না খাতুন (২১) নামে এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহত স্বপ্না খাতুন শাকদহ চর গ্রামের লাল চাঁদের স্ত্রী। 

এ বিষয়ে বোরহান উদ্দিন বলেন, “শনিবার দুপুরে খবর পেয়ে গৃহবধূ স্বপ্না খাতুনের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়।”

পৃথক দুটি ঘটনায় মামলা হয়েছে বলেও জানান ওসি।