• বুধবার, নভেম্বর ১৩, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৭:৩৮ রাত

ভোক্তার মঞ্জুরকে বদলিকারীদের শাস্তির দাবি, মানববন্ধন

  • প্রকাশিত ০৪:১২ বিকেল জুন ৪, ২০১৯
ভোত্তা
মঞ্জুর মোহাম্মদ শাহরিয়ারের বদলিকারীদের শাস্তির দাবিতে খুলনায় আগুয়ান ৭১ এর মানববন্ধন। ছবি: ঢাকা ট্রিবিউন

সরকারের যে সকল কর্মকর্তারা এ অন্যায়ের সহায়তা করেছেন তাদের বর্জন করা উচিত। জনগণের ট্যাক্সের টাকায় পোষা এসব আমলা আধুনিক বর্গীদের পক্ষ নিয়ে সেই জনগণকেই শোষণ করছে। অবিলম্বে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের মতো গুরুত্বপূর্ণ দপ্তর থেকে এদের সরানো হোক।

জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মঞ্জুর মোহাম্মদ শাহরিয়ারের প্রতি অন্যায় আচরণের প্রতিবাদ ও অসাধু ব্যবসায়ী সিন্ডিকেট নস্যাৎ করাসহ ৪ দফা দাবিতে খুলনায় মানববন্ধন হয়েছে। 

৪ জুন, মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে খুলনার নিউ মার্কেটের পাশে আড়ং আউটলেটের সন্নিকটে ‘আগুয়ান-৭১’ নামের একটি সংগঠনের ব্যানারে এ প্রতিবাদী মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। 

আগুয়ান ৭১ এর কেন্দ্রীয় সভাপতি মো. আব্দুল্লাহ চৌধুরির সভাপতিত্বে মানবন্ধনে অংশ নেন সাংবাদিক মনজুরুল আলম পান্না, ঢাকা জেলা আগুয়ানের সভাপতি নূর ইসলাম মুন্সি, খুলনা জেলা সভাপতি আবিদ শান্ত, জেলা সাধারণ সম্পাদক মুহসিন মুন্সি প্রমুখ।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, আজ বাংলাদেশের জনগণ যদি এ ঘটনায় প্রতিবাদ না করে, গর্জে না উঠে- তাহলে সাড়া জীবন ভেজাল খাদ্য খেয়ে ও ভেজাল পণ্য বেশি দাম দিয়ে কিনতে হবে। গত কয়েক মাসে দেশব্যাপী ভেজালবিরোধী অভিযান চালিয়ে আলোড়ন সৃষ্টি করেছিলেন মঞ্জুর মোহাম্মদ শাহরিয়ার। এরই সূত্র ধরে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মঞ্জুর মোহাম্মদ শাহরিয়ারের বদলি হয়েছে। তার মানে কি, অসাধু ব্যবসায়ীদের হাতে জিম্মি বাংলাদেশ? দেশের সাধারণ জনগণের জন্য কারো কিছু করার ক্ষমতা নাই?

মানববন্ধন থেকে আড়ংয়ের পণ্য বর্জনের জন্য দেশবাসীর কাছে অনুরোধ জানানো হয়। একই সাথে মানববন্ধনে আগতরা আড়ংয়ের পণ্য বর্জনের শপথ করেন।

আগুয়ান ৭১ এর কেন্দ্রীয় সভাপতি মো. আব্দুল্লাহ চৌধুরী বলেন, “ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মঞ্জুর মোহাম্মদ শাহরিয়ারের বদলিতে যে সব কর্মকর্তা জড়িত ছিল, তাদের কর্মকাণ্ড সম্পর্কে তদন্ত হওয়া দরকার। সরকারের যে সকল কর্মকর্তারা এ অন্যায়ের সহায়তা করেছেন তাদের বর্জন করা উচিত। জনগণের ট্যাক্সের টাকায় পোষা এসব আমলা আধুনিক বর্গীদের পক্ষ নিয়ে সেই জনগণকেই শোষণ করছে। অবিলম্বে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের মতো গুরুত্বপূর্ণ দপ্তর থেকে এদের সরানো হোক।”

এদিকে মঞ্জুর মোহাম্মদ শাহরিয়ারের বদলির প্রতিবাদে ঢাকার উত্তরা আড়ংয়ের সামনে জড়ো হয়েছিলেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ও বর্তমান ৩০ জনের মতো শিক্ষার্থী এবং স্থানীয়রা।

 

মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে তারা উত্তরা আড়ংয়ের সামনে যান। 

প্রতিবাদ কর্মসূচির আয়োজক সাদিক হাসান খান (জাবির ২৫তম ব্যাচের শিক্ষার্থী) ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, “জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মঞ্জুর মোহাম্মদ শাহরিয়ার সম্প্রতি ভেজালবিরোধী সেসব অভিযান পরিচালনা করে সাধারণ মানুষের পক্ষে কাজ করছিলেন, তাকে বদলি করে দেওয়া উদ্দেশ্যমূলক ও ন্যাক্কারজনক। আমরা এর নিন্দা জানাই।”

সাদিক খান বলেন, “আমরা প্রতিবাদী মানববন্ধনের জন্য আড়ংয়ের সামনে জড়ো হয়েছিলাম। কিন্তু ততক্ষণে বদলির আদেশ স্থগিতের খবর আসে। তাই মানববন্ধনটি আর অনুষ্ঠিত হয়নি।”