• রবিবার, অক্টোবর ২০, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:০০ রাত

প্রকাশ্য দিবালোকে রিফাতকে কুপিয়ে হত্যা, গ্রেপ্তার ১

  • প্রকাশিত ১০:৫৫ সকাল জুন ২৭, ২০১৯
বরগুণা
রিফাতকে কোপানোর ঘটনাটি পুলিশের সিসি ক্যামেরার আওতায় ছিল। ছবি: ভিডিও থেকে

বৃহস্পতিবার সকাল নয়টার দিকে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

বরগুনা সরকারি কলেজের সামনে প্রকাশ্য দিবালোকে শাহ নেয়াজ রিফাত শরীফ (২৫) নামের এক যুবককে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় চন্দন নামে একজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

২৭ জুন, বৃহস্পতিবার সকাল নয়টার দিকে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এর আগে ২৬ জুন, বুধবার নিহত রিফাতের বাবা ১২ জনের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাত পাঁচ থেকে ছয়জনকে আসামি করে বরগুনা সদর থানায় হত্যা মামলা করেন।

গ্রেপ্তার চন্দন রিফাতের বাবার করা মামলার এজাহারভুক্ত আসামি।

বরগুনা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবীর মোহাম্মদ হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে ২৬ জুন, বুধবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বরগুনার কলেজ সড়কের ক্যলিক্স কিন্ডার গার্টেনের সামনে শত লোকের উপস্থিতিতে স্ত্রীর সামনে শাহ নেয়াজ রিফাত কুপিয়ে হত্যা করা হয়।

নিহত রিফাত বরগুনা সদর উপজেলার বুড়িরচর ইউনিয়নের মাইঠা-লবণগোলা এলাকার দুলাল শরীফের একমাত্র ছেলে।


ঢাকা ট্রিবিউনে আরো পড়ুন: বরিশাল রেঞ্জের ডিআইজি: খুনিরা চিহ্নিত, আমরা এদের পেছনে লেগেছি

প্রকাশ্যে কোপানোর ঘটনায় হাইকোর্টের বিস্ময়

‘সে যে মাদক ব্যবসা করে তা আমি জানতাম না’

সন্ত্রাসীরা প্রকাশ্যে কোপাচ্ছে স্বামীকে, বাঁচাতে লড়ছেন স্ত্রী


পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সকাল সাড়ে ১০টার দিকে রিফাত তার স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নিকে নিয়ে বরগুনা সরকারি কলেজে যান। ফেরার পথে কলেজের সামনেই রিফাতের ওপর রামদা, চাপাতি নিয়ে তিন যুবক হামলে পড়েন ও এলোপাথারি কোপাতে থাকেন। এ সময় রিফাতের স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নি হামলাকারী যুবকদের বারবার প্রতিহতের চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন। হামলাকারীরা রিফাত শরীফকে উপর্যুপরি কুপিয়ে রক্তাক্ত করে চলে গেলে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে বরগুনা জেনারেল হাসপাতালে ও পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শেরে বাংলা মেডিকেল কলেজে নিয়ে যান। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বিকেল চারটার দিকে রিফাতের মৃত্যু হয়।