• বুধবার, জুলাই ২৪, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১২:৪৪ রাত

দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য বৃদ্ধিতে পিটিএ চূড়ান্ত করবে ঢাকা-থিম্পু

  • প্রকাশিত ১০:৩৩ রাত জুলাই ৯, ২০১৯
শেখ হাসিনা
বাংলাদেশে নিযুক্ত ভুটানের বিদায়ী রাষ্ট্রদূত সোনাম তোপদেন রাবগে মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে তার সংসদ ভবন কার্যালয়ে সাক্ষাৎ করেন। ছবি: ফোকাস বাংলা

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের জনগণের হৃদয়ে ভুটানের বিশেষ জায়গা রয়েছে। তারা ছিল ১৯৭১ সালে বাংলাদেশকে স্বীকৃতি দেওয়া প্রথম দেশ।

ওবাংলাদেশ ও ভুটান নিজেদের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য বৃদ্ধিতে অগ্রাধিকারমূলক বাণিজ্য চুক্তি (পিটিএ) চূড়ান্ত করতে যাচ্ছে।

৯ জুলাই, মঙ্গলবার বাংলাদেশে নিযুক্ত ভুটানের বিদায়ী রাষ্ট্রদূত সোনাম তোপদেন রাবগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে তার সংসদ ভবন কার্যালয়ে সাক্ষাৎ করতে গিয়ে এ কথা বলেন।

সাক্ষাৎ শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

প্রধানমন্ত্রী ভুটানে জলবিদ্যুৎ উৎপাদনের সম্ভাবনা নিয়ে কথা বলেন এবং বিদ্যুৎ খাতে দুই দেশের মধ্যে সহযোগিতা সম্প্রসারণে জোর দেন।

শেখ হাসিনা দুই দেশের মধ্যে যোগাযোগ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলাপ করেন এবং জানান, বাংলাদেশের বিমান ও সমুদ্রবন্দর ব্যবহার করতে পারে ভুটান।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের জনগণের হৃদয়ে ভুটানের বিশেষ জায়গা রয়েছে। তারা ছিল ১৯৭১ সালে বাংলাদেশকে স্বীকৃতি দেওয়া প্রথম দেশ।

বিভিন্ন সময়ে ভুটান সফরের কথা স্মরণ করে শেখ হাসিনা বলেন, তিনি যখনই কোনো কারণে অন্য দেশে যান তখন তিনি সব সময়ই ভুটানের পরিবেশের কথা উল্লেখ করেন।

সোনাম তোপদেন রাবগে ঢাকায় দায়িত্ব পালনকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারের সহযোগিতার জন্য তাকে ধন্যবাদ জানান।

বাংলাদেশে অসাধারণ আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের জন্য শেখ হাসিনার নেতৃত্বের ভূয়সী প্রশংসাও করেন রাবগে।

তিনি জানান যে এক লাখ মেট্রিক টন পাথর শিগগিরই বাংলাদেশে এসে পৌঁছাবে।

সম্প্রতি ভুটানের প্রধানমন্ত্রীর বাংলাদেশ সফরের কথা স্মরণ করে তিনি বলেন, বাংলাদেশে তিনি পহেলা বৈশাখ অনেক উপভোগ করেছেন।

প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব মো. নজিবুর রহমান ও প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সচিব সাজ্জাদুল হাসান এ সময় উপস্থিত ছিলেন।