• সোমবার, অক্টোবর ২১, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০২:১৮ দুপুর

অবশেষে থানায় হলো বিয়ে!

  • প্রকাশিত ০১:৫৩ দুপুর জুলাই ২৬, ২০১৯
বিয়ে
প্রতীকী ছবি

শুক্রবার রাতে পৌরসভার কাজী ডেকে থানার সার্ভিস ডেলিভারী সেন্টারে উভয় পরিবারের সম্মতিতে বিয়ে পড়ানো হয়

ফেনীর সোনাগাজি মডেল থানায় এক প্রেমিক যুগলের বিয়ে সম্পন্ন হয়েছে। পুলিশের মধ্যস্থতায় পাঁচ  লাখ টাকা দেনমোহরে দুই পরিবারের সম্মতিক্রমে এই বিয়ে সম্পন্ন হয়।

শুক্রবার রাতে পৌরসভার কাজী ডেকে থানার সার্ভিস ডেলিভারী সেন্টারে বিয়ে পড়ানো হয়। ঘটনাটি জানাজানি হলে এলাকায় বেশ আলোচনার সৃষ্টি হয়। 

পুলিশ ও বিয়েতে উপস্থিত লোকজন জানায়, উপজেলার চর মজলিশপুর ইউনিয়নের দশআনি এলাকার আবুল বাশারের মেয়ে বিলকিছ আক্তারের (২০) সঙ্গে  দাগনভূঞা উপজেলার পূর্ব চন্দ্রপুর ইউনিয়নের বৈরাগপুর এলাকার নুর নবীর ছেলে ইয়াকুবুর রহমান (২৬) মোবাইল ফোনের মাধ্যমে পরিচয় ঘটে। ইয়াকুবুর রহমান প্রবাসে থাকাকালীন অবস্থায় তাদের পরিচয় পরিণয়ে রুপ নেয়। এভাবেই মুঠোফোনে আড়াই বছর ধরে চলে তাদের প্রেম।

কয়েক মাস আগে ইয়াকুব দেশে ফেরেন এবং বিয়ের প্রস্তাব নিয়ে বিলকিছের বাড়িতে যান। তবে ইয়াকুবুরের আচরণ ভালো না লাগায় প্রস্তাব নাকচ করে দিয়ে বাড়ি থেকে বেরিয়ে যেতে বলেন বিলকিছের মা।

এসবের পরিপ্রেক্ষিতে ক্ষুব্ধ হয়ে ইয়াকুবুর বিলকিছকে তুলে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন বলে অভিযোগ ওঠে। পরে বিষয়টি থানা পর্যন্ত গড়ায়। সেখানে পুলিশের মধ্যস্থতায় দুই পরিবার বিয়েতে সম্মত হন এবং থানাতেই তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়। 

সোনাগাজি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মাইন উদ্দিন ঢাকা ট্রিবিউনকে বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, "বিয়ের পর মেয়েকে ছেলের বাড়িতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।"