• শুক্রবার, সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:৪৭ সকাল

এফআর টাওয়ারের নকশা জালিয়াতি, বিএনপি নেতা তাসভীরুল গ্রেফতার

  • প্রকাশিত ০৮:৪১ রাত আগস্ট ১৮, ২০১৯
তাসভীর উল ইসলাম
বনানীর এফআর টাওয়ারের অন্যতম মালিক তাসভীর উল ইসলাম। ফাইল ছবি।

নকশা জালিয়াতি ছাড়াও কুড়িগ্রাম জেলা বিএনপির সভাপতি তাসভীর জিএসপি ফাইন্যান্স করপোরেশন থেকে ঋণ নিয়ে ৫.৬৫ কোটি টাকা আত্মসাতও করেছেন বলেও দুদক জানিয়েছে

অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্ত বনানীর এফআর টাওয়ারের নকশা জালিয়াতির এক মামলায় এর অন্যতম মালিক কাসেম ড্রাইসেলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও বিএনপি নেতা তাসভীর উল ইসলামকে গ্রেফতার করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

ইউএনবি'র একটি খবরে বলা হয়, রবিবার বিকেলে রাজধানীর সেগুনবাগিচা এলাকা থেকে কমিশনের উপপরিচালক আবুবকর সিদ্দিকির নেতৃত্বে দুদক টিম তাকে গ্রেফতার করে। দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে নকশা জালিয়াতির মাধ্যমে অবৈধভাবে ভবনটিতে কয়েকটি তলা বাড়ানোর অভিযোগে ২৩ জনের বিরুদ্ধে দু'টি মামলা করে দুদক।

দুদক জানায়, নকশা জালিয়াতি ছাড়াও কুড়িগ্রাম জেলা বিএনপির সভাপতি তাসভীর জিএসপি ফাইন্যান্স করপোরেশন থেকে ঋণ নিয়ে ৫.৬৫ কোটি টাকা আত্মসাতও করেছেন।

উল্লেখ্য, গত ২৮ মার্চ রাজধানীর বনানীতে বহুতল ভবনে অগ্নিকাণ্ডে ২৬ জন নিহত হন। আহত হন ৭০ জন। এছাড়া অগ্নিকাণ্ডে আটকা পড়াদের বাঁচাতে গিয়ে আহত ফায়ারম্যান সোহেল রানা ৮ এপ্রিল রাতে সিঙ্গাপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান।

কর্তৃপক্ষ ১৫ তলা ভবন নির্মাণের অনুমতি নিলেও বিভিন্ন সময়ে অবৈধভাবে তা ২৩ তলা পর্যন্ত বাড়ানো হয়।  তাসভীরের কোম্পানি ওই ভবনের ২১, ২২ ও ২৩ তলার মালিক।

এফআর টাওয়ারে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় দায়ের হওয়া মামলায় গত ৩০ মার্চ তাসভীরকে বারিধারার বাসা থেকে গ্রেপ্তার করে গোয়েন্দা পুলিশ। গত ৮ এপ্রিল সাত দিনের রিমান্ড শেষে এ মামলায় তাসভীরকে কারাগারে পাঠায় আদালত। ১১ এপ্রিল জামিনে মুক্তি পান তিনি।