• সোমবার, অক্টোবর ২১, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৩৩ রাত

সিলেটে প্রথমবারের মতো চালু হলো ট্যুরিস্ট বাস

  • প্রকাশিত ০৮:০০ রাত অক্টোবর ৮, ২০১৯
সিলেট পর্যটন বাস
মঙ্গলবার সিলেট নগরীতে পর্যটন বাস উদ্বোধন করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ.কে মোমেন ঢাকা ট্রিবিউন

শীতাতপ নিয়ন্ত্রণ ও ওয়াইফাই সুবিধাসম্পন্ন বাসগুলো সিলেট শহর থেকে বিভিন্ন পর্যটন কেন্দ্রে পর্যটকদের বহন করবে

ভ্রমণপিপাসুদের জন্য সিলেটে প্রথমবারের মতো চালু হয়েছে ট্যুরিস্ট বাস। উদ্বোধনের দিনে দুটি বাস রাস্তায় নেমেছে। তত্ত্বাবধানের দায়িত্বে রয়েছে সিলেট ট্যুরস এন্ড ট্রাভেলস নামে একটি বেসরকারি পরিবহন সংস্থা।

মঙ্গলবার (৮ সেপ্টেম্বর) বেলা আড়াইটার দিকে নগরীর জিন্দাবাজারে বেলুন উড়িয়ে দুটি বাসের উদ্বোধন করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে মন্ত্রী বলেন, আমাদের জিডিপিতে পর্যটনের অবদান মাত্র ০.০০৫ ভাগ। অথচ থাইল্যান্ডের জিডিপির ২৩ ভাগ আসে পর্যটন খাত থেকে। বর্তমান সরকার পর্যটনখাতকে গুরুত্ব দিয়ে কাজ করছে।

পর্যটন শিল্পকে বিকশিত করতে অবকাঠামোগত উন্নয়ন করা হচ্ছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, সিলেটে ট্যুরিস্ট বাস চালুর মধ্য দিয়ে নতুন ইতিহাস সৃষ্টি হলো। অল্প কিছু দিনের মধ্যে সিলেট নগরীর সর্বত্র ওয়াইফাই চালু করা হবে। তখন পর্যটকদের জন্যও সুবিধা হবে। সিলেটকে সত্যিকারার্থে পর্যটন নগরী হিসেবে গড়ে তুলতে সবার সহযোগিতা চান তিনি।

এদিকে, ভবিষ্যতে আরও ৬টি বাস চালুর কথা জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা। এসব বাসে থাকছে শীতাতপ নিয়ন্ত্রণ ও ওয়াইফাই সুবিধা। আকৃতিভেদে ২২ থেকে ২৪ আসন বিশিষ্ট বাসগুলো সিলেট শহর থেকে বিভিন্ন পর্যটন কেন্দ্রে পর্যটকদের বহন করবে।

ট্যুরিস্ট বাস উদ্বোধনকালে সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদ উদ্দিন আহমদ, সিলেট চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি এ টি এম শোয়েব, সিনিয়র সহসভাপতি তাহমিন আহমেদ, সহসভাপতি চন্দন দাস, পরিচালক আব্দুল রহমান জামিল, এহতেশামুল হক চৌধুরী, মামুন কিবরিয়া প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।