• সোমবার, জুন ১৭, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৫৯ রাত

বাড়বে বিড়ি-সিগারেটের দাম

  • প্রকাশিত ০৪:৫১ বিকেল জুন ১৩, ২০১৯
সিগারেট
প্রতীকী ছবি সৈয়দ জাকির হোসাইন/ঢাকা ট্রিবিউন

প্রস্তাবিত এই বাজেটে বাজারের প্রচলিত সর্বনিন্ম স্তরের ১০ শলাকা সিগারেটের দাম ৩৭ টাকা এবং ৫৫ শতাংশ শুল্ক, মধ্যম স্তরের সিগারেটের ১০ শলাকা ৬৩ টাকা এবং ৬৫ শতাংশ শুল্ক এবং উচ্চ স্তরের ১০ শলাকা ৯৩ টাকা ও ১২৩ টাকা এবং ৬৫ শতাংশ হারে শুল্ক আরোপের প্রস্তাব করা হয়েছে।  

২০১৯-২০ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটে বিড়ি-সিগারেটসহ তামাকজাত দ্রব্যের ওপর সম্পূরক শুল্ক বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে। ফলে বিড়ি-সিগারেটসহ তামাকজাত পণ্যের দাম বাড়বে।

১৩ জুন, বৃহস্পতিবার জাতীয় সংসদে ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেট পেশ করার সময় এ কথা জানানো হয়। বাজেট ঘোষণার সময় অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল  সময় অসুস্থ হয়ে পড়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা স্পিকারের অনুমতিক্রমে বাজেট ঘোষণা করছেন।

প্রস্তাবিত এই বাজেটে বাজারের প্রচলিত সর্বনিন্ম স্তরের ১০ শলাকা সিগারেটের দাম ৩৭ টাকা এবং ৫৫ শতাংশ শুল্ক, মধ্যম স্তরের সিগারেটের ১০ শলাকা ৬৩ টাকা এবং ৬৫ শতাংশ শুল্ক এবং উচ্চ স্তরের ১০ শলাকা ৯৩ টাকা ও ১২৩ টাকা এবং ৬৫ শতাংশ হারে শুল্ক আরোপের প্রস্তাব করা হয়েছে।


আরও পড়ুন-  দাম বাড়ছে স্মার্টফোনের 


এ ছাড়া হাতে তৈরি ফিল্টার বিহীন বিড়ির ২৫ শলাকার দাম ১৪ টাকা এবং ৩৫ শতাংশ শুল্ক, ফিল্টারযুক্ত ২০ শলাকার দাম ১৭ টাকা এবং ৪০ শতাংশ শুল্ক আরোপের প্রস্তাব করা হয়েছে। 

অন্যদিকে জর্দা ও গুলের ব্যবহার কমাতে ১০ গ্রাম জর্দা ৩০ টাকা এবং ৫০ শতাংশ শুল্ক এবং ১০ গ্রাম গুলের দাম ১৫ টাকা এবং ৫০ শতাংশ শুল্ক আরোপের প্রস্তাব করা হয়েছে।