• শুক্রবার, অক্টোবর ১৮, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:০৯ রাত

আবু ধাবিতে তৈরি হচ্ছে প্রথম ইহুদি উপাসনালয়!

  • প্রকাশিত ০৬:৩৩ সন্ধ্যা সেপ্টেম্বর ২৩, ২০১৯
ইহুদি
আবু ধাবির এই ধর্ম কমপ্লেক্সে থাকবে একটি মসজিদ, একটি গির্জা ও একটি সিনাগগ। ছবি: সংগৃহীত

আরব আমিরাতে এতদিন কোনও ইহুদি উপাসনালয় বা সিনাগগ না থাকলেও দেশটিতে বেশ কয়েকটি গির্জা, একটি হিন্দুমন্দির ও শিখদের একটি গুরুদুয়ারা রয়েছে

সংযুক্ত আরব আমিরাতে প্রথমবারের মতো গড়ে তোলা হচ্ছে ইহুদিদের উপাসনালয় সিনাগগ৷ আগামীবছর এর নির্মাণকাজ শুরু হয়ে ২০২২ সালের মধ্যে শেষ হবে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে ডয়চে ভেলে।

আবু ধাবিতে নির্মাণ হচ্ছে আব্রাহামিক ধর্মগুলোর একটি কমপ্লেক্স৷ এই প্রকল্পের আওতায় একই চত্ত্বরে থাকবে মসজিদ, গির্জা ও সিনাগগ৷ আবু ধাবির পত্রিকা দ্য ন্যাশনাল রবিবার এই সংবাদ প্রকাশ করেছে৷

গত ফেব্রুয়ারিতে প্রথম পোপ হিসেবে আরব উপদ্বীপ সফরের অংশ হিসেবে আরব আমিরাতে আসেন পোপ ফ্রান্সিস৷ তখনই এ কমপ্লেক্স তৈরির ঘোষণা করা হয়৷

মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশ আরব আমিরাত নিজেদের সহনশীলতা, ধর্মীয় স্বাধীনতা ও সাংস্কৃতিক বৈচিত্র্যের কেন্দ্র হিসেবে তুলে ধরতে চায়৷

আরব আমিরাতের প্রথম সিনাগগ হলেও দেশটিতে প্রবাসী হিসেবে বসবাসরত স্বল্পসংখ্যক ইহুদি জনগোষ্ঠী একটি ভাড়া বাড়িতে উপাসনা করে আসছেন৷ কোনো সিনাগগ না থাকলেও দেশটিতে বেশ কয়েকটি গির্জা, হিন্দুদের একটি মন্দির ও শিখদের একটি গুরুদুয়ারা রয়েছে৷

আরব আমিরাতে বসবাসকারীদের বেশিরভাগই বিদেশি শ্রমিক ও তাদের সবচেয়ে বড় অংশ ভারতীয় নাগরিক৷ আবু ধাবির ভারতীয় দূতাবাস জানিয়েছে, আরব আমিরাতে অন্তত ২৬ লাখ ভারতীয় বাস করেন৷ অর্থাৎ, আমিরাতের মোট জনসংখ্যার প্রায় ৩০ শতাংশই এখন ভারতীয়৷

আরব আমিরাতের সঙ্গে ইসরায়েলের কূটনৈতিক সম্পর্ক নেই৷ তবে আন্তর্জাতিক বিভিন্ন আয়োজনে অংশ নিতে ইসরায়েলি রাজনীতিবিদরা মাঝেমধ্যেই আমিরাতে আসেন৷