• সোমবার, জুন ২৪, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৬:৩৭ সন্ধ্যা

শিশু আসিফা গণধর্ষণ ও হত্যায় ৩ জনের যাবজ্জীবন

  • প্রকাশিত ০৭:১৮ রাত জুন ১০, ২০১৯
শিশু আসিফা
শিশু আসিফাকে ধর্ষণ ও হত্যায় মোমবাতি জ্বালিয়ে প্রতিবাদ জানায় সর্বস্তরের জনগণ। ছবি: রয়টার্স

কাশ্মীরে শিশু আসিফাকে গণধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডে ৬ অভিযুক্ত ব্যক্তিকে দোষী সাব্যস্ত করেছে ভারতীয় আদালত

কাশ্মীরে শিশু আসিফাকে গণধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডে ৬ অভিযুক্ত ব্যক্তিকে দোষী সাব্যস্ত করেছে দেশটির আদালত। 

সোমবার (১০ জুন) অভিযুক্ত ৩ জনকে যাবজ্জীবন ও বাকি ৩ জনকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে জার্মান ভিত্তিক সংবাদ মাধ্যম ডয়েচে ভেলে। ৩ জুন তারিখে এই মামলার শুনানি প্রক্রিয়া শেষ হয়। শুনানী পর্বটি ক্যামেরাবন্দি করা হয়েছে।

 প্রতিবেদনটিতে বলা হয়েছে, পঞ্চায়েত প্রধান সঞ্জী রাম, দুই বিশেষ পুলিশ অফিসার দীপক খাজুরিয়া, সুরেন্দ্র বর্মা এবং পুলিস কনস্টেবল আনন্দ দত্ত, হেড কনস্টেবল তিলক রাজ এবং প্রবেশ কুমারসহ  ৬ জনকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে।তবে অভিযুক্ত আরো ২ জনের মধ্যে একজনের সংশ্লিষ্টতা খুঁজে না পাওয়ায় ছেড়ে দেয়া হয়েছে। অপর এক ব্যক্তি প্রাপ্ত বয়স্ক না হওয়ায় মুক্তি পেয়েছে।

এদিকে, এ রায়ে আদালতের বাইরে একজন আইনজীবী সাংবাদিকদের জানান, “সত্যের পক্ষে এ রায়ে উচ্ছ্বসিত আমরা। এর মধ্য দিয়ে শিশু আসিফা ও তার পরিবার প্রকৃত বিচার পেলো।” 

এদিকে, এ হত্যাকাণ্ডটি ‘রাজনৈতিক’ বলেও তদন্ত প্রতিবেদনে বের হয়ে এসেছে। বিশেষ করে ভারত অধ্যুষিত জম্মু ও কাশ্মীরের কাঠুয়ার হিন্দু সম্প্রদায় অধ্যুষিত রাসানা গ্রামে ‘ধর্মীয় আধিপত্য বিস্তার’ করতেই এ ধর্ষণের ঘটনা পরিকল্পিতভাবে ঘটানো হয় বলেও প্রতিবেদনটিতে জানানো হয়েছে।

প্রসঙ্গত, গত বছর ১০ জানুয়ারি জম্মু-কাশ্মীরের কাঠুয়ায় ঘোড়া চড়ানোর সময় আট বছর বয়সী শিশু আসিফাকে অপহরণের পর স্থানীয় মন্দিরে নিয়ে সাতদিন ধরে ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়।