• বুধবার, জুলাই ২৪, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১২:৪৪ রাত

খেলা দেখতে গিয়ে রোগীর কাটা আঙুল হারালেন হাসপাতালকর্মীরা

  • প্রকাশিত ০৪:০৮ বিকেল জুলাই ১২, ২০১৯
সিএমআরআই হাসপাতাল
সিএমআরআই হাসপাতাল। ছবি: সংগৃহীত

হাসপাতালকর্মীরা  ভারত-নিউজিল্যান্ড সেমিফাইনাল খেলা দেখতে ব্যস্ত থাকায় এই ঘটনা ঘটে বলে অভিযোগ উঠেছে

ভারতের কলকাতায় ভারত-নিউজিল্যান্ড সেমিফাইনাল খেলা দেখতে গিয়ে দুর্ঘটনায় রোগীর কাটা যাওয়া আঙুল হারিয়ে ফেলার অভিযোগ উঠেছে কলকাতা মেডিকেল রিসার্চ ইন্সটিটিউট (সিএমআরআই) হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার সকালে এই ঘটনা ঘটে বলে ভারতের সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি'র এক প্রতিবেদনে জানা গেছে।

জানা যায়, কলকাতার হাওড়াতে নিজের কর্মস্থলের কাছে দুর্ঘটনার কবলে পড়ে বাম হাতের একটি আঙুল দুই টুকরো হয়ে যায় নিখিল চক্রবর্তী (৩৮) নামে এক ব্যক্তির। দ্রুত তাকে সিএমআরআই হাসপাতালে নিয়ে যান তার সহকর্মীরা। আঙুল জোড়া লাগাতে বৃহস্পতিবার সকালে অস্ত্রোপচার হওয়ার কথা ছিল নিখিলের। কিন্তু অস্ত্রোপচারের কিছুক্ষণ আগে তার স্বজনেরা লক্ষ্য করেন যে তার আঙুলের কাটা যাওয়া অংশটি নেই।

নিখিলের স্ত্রী দাবি করেন, "হাসপাতালের কর্মীরা ভারত-নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট ম্যাচ দেখতেই ব্যস্ত ছিল। এ কারণেই তারা কাটা যাওয়া আঙুল হারিয়ে ফেলে।"

নিখিলকে হাসপাতালে ভর্তি করার সময় কাটা যাওয়া অংশটি হাসপাতালের এমার্জেন্সি কাউন্টারে জমা দিয়েছিলেন নিখিলের এক সহকর্মী। তিনি বলেন, "ওকে যখন অপারেশন থিয়েটারে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল, তখনই কারও একটা চোখে পড়ে আঙুলের কাটা যাওয়া অংশটি নেই। আমি তার স্ত্রীকেও জিজ্ঞাসা করলাম আঙুলে বাকি অংশের কী অবস্থা? কিন্তু তার স্ত্রীও বিষয়টি জানতেন না। তখন হাসপাতালের কর্মীরা সব জায়গায় কাটা আঙুল খুঁজতে থাকে, সর্বত্র, এমনকি আবর্জনা ফেলার জায়গাতেও। সকাল সাড়ে ৯ টার সময়   অস্ত্রোপচার হবে এমনটাই নির্ধারিত ছিল। কিন্তু দুপুর পর্যন্ত হাসপাতালের কর্মীরা খোয়া যাওয়া আঙুলের অংশ খুঁজে পাননি।"

এদিকে, এমন মারাত্মক অবহেলার কারণে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করেছেন নিখিলের স্ত্রী। দোষীদের বিরুদ্ধে যথাযথ পদক্ষেপ নেয়ার দাবি জানিয়েছেন তিনি।