• রবিবার, আগস্ট ১৮, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:৩৭ রাত

গত ছয়দিনে কোথাও সহিংস ঘটনা ঘটেনি, কাশ্মীর পুলিশের দাবি

  • প্রকাশিত ০১:১১ দুপুর আগস্ট ১১, ২০১৯
কাশ্মীর
ছবি: সংগৃহীত

পুলিশ জানায়, কিছু আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম উপত্যকায় গুলি চালানোর খবর প্রচার করলেও তা সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ও মিথ্যা। এমন কোনও ঘটনাই ঘটেনি। গত এক সপ্তাহ ধরেই উপত্যকা শান্তিপূর্ণ রয়েছে

জম্মু-কাশ্মীরের পরিস্থিতি শান্তিপূর্ণ এবং গত ছয়দিনে কোথাও কোনও সহিংস ঘটনা ঘটেনি বলে বিবৃতি দিয়েছে জম্মু-কাশ্মীর পুলিশ। একইসাথে, সাধারণ মানুষকে  ‘উদ্দেশ্যপ্রণোদিত’ ও ‘ভুয়া’ খবরে বিশ্বাস না করার আবেদনও করা হয় বিবৃতিতে।

শনিবার (১১ আগস্ট) বিবৃতিতে কাশ্মীর পুলিশের ডিজি দিলবাগ সিংহ জানান, “কোথাও কোনও অপ্রীতিকর পরিস্থিতি তৈরি হয়নি। একটি ছোট-খাট পাথর ছোড়ার ঘটনা ঘটেছিল। তবে, তা বড় আকার নেওয়ার আগেই সামাল দেওয়া হয়েছে।’’


আরও পড়ুন: কাশ্মীরের স্বায়ত্তশাসন বাতিল করলো ভারত


সাধারণ মানুষের বিক্ষোভ ও তাতে পুলিশের গুলি চালানোর দাবি উড়িয়ে দিয়ে তিনি বলেন, ‘‘কিছু আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম উপত্যকায় গুলি চালানোর খবর প্রচার করলেও তা সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ও মিথ্যা। এমন কোনও ঘটনাই ঘটেনি। গত এক সপ্তাহ ধরেই উপত্যকা শান্তিপূর্ণ রয়েছে।”

বিবৃতিতে আরও বলা হয়, ‘কাশ্মীরের পরিস্থিতি শান্তিপূর্ণ। সাধারণ মানুষও সহযোগিতা করছেন। পরিস্থিতি বুঝে বিধি-নিষেধও শিথিল করা হচ্ছে। শ্রীনগর-সহ অন্যান্য শহরে ভালরকম যান চলাচল করছে। মানুষজন ঈদের কেনা-কাটায় ব্যস্ত।’

গত সোমবার (৫ আগস্ট) প্রায় সাতদশক ধরে চলমান বিরোধপূর্ণ মুসলিম-অধ্যুষিত রাজ্যটির এই বিশেষ মর্যাদা তুলে নেওয়ার কথা ভারতের পার্লামেন্টকে জানান দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। এর আগে, একইদিনে ভারতের প্রেসিডেন্ট রামনাথ কোবিন্দ এক প্রেসিডেন্সিয়াল অর্ডারের মাধ্যমে আইনটি বাতিল করেন।