• রবিবার, জুলাই ২১, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:৩৫ দুপুর

নারীবাদকে 'ভণ্ডামী' বললেন যুক্তরাষ্ট্রের রাজনীতিক

  • প্রকাশিত ০৫:৩৩ সন্ধ্যা জুন ১৮, ২০১৯
ক্যানডেইস ওয়েনস
ক্যানডেইস ওয়েনস। ছবি: সংগৃহীত

তিনি আরও বলেন, নারীবাদ একসময় ভালো ব্যাপার ছিল, কিন্তু এখন তা বামদের দ্বারা 'ছিনতাই' হয়ে গেছে

যুক্তরাষ্ট্রের রাজনৈতিক কর্মী ও বক্তা ক্যানডেইস ওয়েনস নারীবাদকে ভণ্ডামী বলে অভিহিত করেছেন। সম্প্রতি এক বক্তৃতায় তিনি বলেন নারীবাদ আসলে ভণ্ডামী এবং এটি নারীদেরকে উপরে ওঠানোর বদলে বরং নিচে ফেলে দিচ্ছে।

ট্রামপন্থী রক্ষণশীল ঘরানার এই রাজনীতিক তরুণীদের উদ্দেশ্যে এক বক্তৃতায় এ কথা বলেন। বক্তৃতাটির ভিডিওটি ইউটিউবে প্রকাশিত হয়, যা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ব্যাপক আলোচনার জন্ম দিয়েছে।

বক্তৃতায় ক্যানডেইস তার এক বান্ধবীর গল্প বলেন। বান্ধবীর উদ্ধৃতি দিয়ে তিনি বলেন, "আমি অনেক দেরিতে সে বুঝতে পারি যে নারীবাদ হলো ভণ্ডামী। আমার বয়স এখন ৫৫ এবং এখনও অবিবাহিত। সন্তান নেওয়ার বয়স আমার পার হয়ে গেছে এবং সুখি হওয়ার জন্য এখন আমাকে ওষুধ নিতে হচ্ছে। আমি যদি অতীতে ফিরে যেয়ে কিছু করতে পারতাম তাহলে সেটা হল নারীবাদের ভণ্ডামী সম্পর্কে নিজেকে সতর্ক করা।"

ক্যানডেইস বলেন, নারীবাদী হওয়ার কারণে তার সেই বান্ধবী এখন অনুশোচনায় ভোগেন।

ক্যানডেইস তার বক্তৃতায় বলেন, নারীবাদ সংক্রান্ত একটি কোর্স- 'ফেমিনিজম ১০১' তিনি কলেজে থাকতে পড়েন এবং তখনই উপলব্ধি করেন নারীবাদ তার জন্য নয়। 

তিনি আরও বলেন, নারীবাদ একসময় ভালো ব্যাপার ছিল, কিন্তু এখন তা বামদের দ্বারা 'ছিনতাই' হয়ে গেছে। 

বক্তৃতায় মাইলি সাইরাস, লেনা ডানহ্যাম ও চেলসি হ্যান্ডলারের মতো নারীবাদী সেলিব্রিটিদের নাম উল্লেখ করে উপস্থিত শ্রোতাদের উদ্দেশ্যে ক্যানডেইস বলেন, "আপনাদের কী মনে হয় তারা সুখি? কোনো অবস্থাতেই তারা সুখি নয়। এজন্যই আমি মনে করি নারীবাদ হলো ভণ্ডামী। এটি নারীদের উপরে ওঠানোর বদলে ছিন্নবিচ্ছিন্ন করে নিচে ফেলে দিচ্ছে।" 

নারীদের প্রতি যৌন হয়রানির বিরুদ্ধে গড়ে ওঠা #মিটু আন্দোলনের বিরোধীতা করেও এর আগে আলোচনায় এসেছিলেন ক্যানডেইস।