• সোমবার, সেপ্টেম্বর ২৩, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:০৪ রাত

তিন বছর ধরে কাক তাড়িয়ে বেড়াচ্ছে তাকে! (ভিডিও)

  • প্রকাশিত ০৬:০৪ সন্ধ্যা সেপ্টেম্বর ১০, ২০১৯
কাক
ছবি: সংগৃহীত

'সিনেমায় দেখানো ফাইটার জেটের মতো তার ওপর হামলে পড়ে কাকগুলো'

গত তিন বছর ধরে কাকের ভয়ে রীতিমতো দুঃস্বপ্নময় জীবন কাটাচ্ছেন ভারতের মধ্যপ্রদেশের শিভা কেওয়াট। ঘর থেকে বের হলেই কাকের আক্রমণের শিকার হন তিনি। বেছে বেছে তার ওপরই চড়াও হয় কাক।

ঘটনার সূত্রপাত বছর তিনেক আগে। সেই থেকে ছোট্ট একটা ‘ভুলের’ মাশুল গুণতে হচ্ছে তাকে। কেওয়াট জানান, রাস্তার পাশে একটি লোহার জালে আটকে থাকা কাকের ছানাকে ছাড়িয়ে দেওয়ার চেষ্টা করছিলেন তিনি। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশতঃ ছোট্ট ছানাটি তার হাতের ওপরেই মারা যায়। এই ঘটনার পর থেকেই তার ওপর ক্ষুব্ধ গ্রামের কাক সমাজ। কখনো সদলবলে, আবার কখনওবা একটি কাক তাড়িয়ে বেড়ায় তাকে। কাকের ঠোঁকর থেকে বাঁচতে সবসময় সঙ্গে একটি লাঠি রাখেন কেওয়াট।

ভারতীয় গণমাধ্যমক টাইমস অব ইন্ডিয়াকে তিনি আরও বলেন, “আমার হাতের ওপরেই ছানাটি মারা গিয়েছিল। আমার উদ্দেশ্য ছিল বাচ্চাটিকে বাঁচানো, এটা যদি ওদের বোঝানো যেত...।”

তবে শুরুর দিকে বিষয়টিকে খুব একটা পাত্তা দেননি তিনি। যতদিন না বুঝলেন অন্য কেউ নয়, তিনিই কাকদের একমাত্র টার্গেট।

কেওয়াটের ওপর কাকদের এই চড়াও মনোভাব দেখতে প্রতিদিনই গ্রামবাসী জড়ো হয় তার বাড়ির আশপাশে।

এক প্রতিবেশীর ভাষায়, “সিনেমায় দেখানো ফাইটার জেটের মতো তার ওপর হামলে পড়ে কাকগুলো।”

এ বিষয়ে ভারতের ভোপাল বিশ্ববিদ্যালয়ের পাখিদের আচরণ বিষয়ে বিশেষজ্ঞ প্রফেসর অশোক কুমার মুঞ্জাল বলেন, কাকের স্মৃতিশক্তি বেশ তীক্ষ্ণ এবং কারও ওপর ক্ষোভ থাকলে তারা সেটা মনে রাখতে পারে। তবে তাদের প্রতিশোধস্পৃহা মানুষের মতো জটিল না হলেও তারা তাদের অনিষ্টকারী মানুষের ওপর হামলা করতে পারে। 

ভিডিও-