• বুধবার, জুলাই ২৪, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১২:৪৪ রাত

১৪ জুলাই জ্বালানি মন্ত্রণালয় ঘেরাওয়ের ঘোষণা বামজোটের

  • প্রকাশিত ০৫:০২ সন্ধ্যা জুলাই ৭, ২০১৯
হরতাল
গ্যাসের দাম বাড়ানোর প্রতিবাদে সারাদেশে অর্ধদিবস হরতাল পালন করছে বাম গণতান্ত্রিক জোট। মেহেদী হাসান/ঢাকা ট্রিবিউন

‘সরকার গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত থেকে সরে না এলে কর্মসূচির মাধ্যমে সারাদেশ অচল করে দেওয়া হবে’

গ্যাসের দাম বাড়ানোর প্রতিবাদে ১৪ জুলাই সমাবেশ ও জ্বালানি মন্ত্রণালয় ঘেরাও কর্মসূচি ঘোষণা করেছে বাম গণতান্ত্রিক জোট।

রোববার (৭ জুলাই) অর্ধবেলা হরতাল শেষে নতুন এ কর্মসূচি ঘোষণা করেন বাম গণতান্ত্রিক জোটের সমন্বয়ক ইউনাইটেড কমিউনিস্ট লীগের সাধারণ সম্পাদক মোশাররফ হোসেন নান্নু। তবে দাবি আদায় না হলে ১৯ জুলাই প্রতিনিধি সভা করে লাগাতার কর্মসূচি দেয়া হবে বলেও জানান তিনি।

মোশাররফ হোসেন নান্নু বলেন, “দেশের মানুষের জন্য গ্যাস অতিপ্রয়োজনীয়।গ্যাসের দাম বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে সব পণ্যের দাম বাড়বে, কারখানার উৎপাদন খরচ বেড়ে যাবে, এর প্রভাব পড়বে সাধারণ জনগণের ওপর।”

“আমরা সরকারকে এই সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসার আহ্বান জানাই। সরকার যদি আমাদের এই আহ্বান না মেনে নেয় তাহলে আগামী ১৪ জুলাই সকাল ১১টায় জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে সমাবেশ এবং একই দিনে বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয় ঘেরাও করা হবে। 

তিনি বলেন, “এরপরও সরকার বাম জোটের দাবি মেনে না নিলে ১৯ জুলাই বাম দলগুলো প্রতিনিধি সম্মেলন করে পরবর্তীতে লাগাতার কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে জানান তিনি। তারপরও সরকার গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত থেকে সরে না এলে কর্মসূচির মাধ্যমে সারাদেশ অচল করে দেওয়া হবে।”

সকাল ৬টা থেকে গ্যাসের দাম বাড়ানোর প্রতিবাদেসারাদেশে শুরু হওয়া আধাবেলা হরতাল পালনের পর নতুন এই কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়। বাম জোটের হরতালে বিএনপিও সমর্থন দেয়। প্রগতিশীল ছাত্র জোটের কর্মীরা শাহবাগ এলাকায় সড়বে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ করায় ওই মোড় হয়ে যানবাহন চলাচল বন্ধ ছিল।