• রবিবার, জুলাই ২১, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:৪৬ দুপুর

সাকিব দাপটে কোণঠাসা আফগানিস্তান

  • প্রকাশিত ০৩:৪৪ বিকেল জুন ২৪, ২০১৯
সাকিব
ছবি : এএফপি

জিততে হলে ৫০ ওভারে আফগানদের প্রয়োজন ২৬৩ রান।

বিশ্বকাপে টিকে থাকার লড়াইয়ে সাউদাম্পটনের রোজ বোলে আফগানিস্তানের বিপক্ষে ব্যাটে নেমে ৫০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে টাইগারদের সংগ্রহ করে ২৬২ রান। জবাবে ৩৩ ওভার শেষে ৫ উইকেটে ১১৭ রান করেছে আফগানরা। এর মধ্যে ৪ উইকেটই তুলে নিয়েছেন সাকিব আল হাসান। 

গুলবাদিন নাইব ও রহমত শাহের জুটিতে বেশ ভালোই শুরু করেছিলো আফগানিস্তান। ১০ ওভার পর্যন্ত শক্তভাবে টিকে ছিলো এই জুটি। তবে সাকিব আল হাসান ১১তম ওভারে বল হাতে নিয়েই বাজিমাত করেন। নিজের পঞ্চম বলে রহমত শাহকে ২৪ রানে তামিম ইকবালের ক্যাচ বানান বাঁহাতি স্পিনার। 

ইনিংসের ২১তম ওভারে মোসাদ্দেক ফিরিয়ে দেন হাসমতউল্লাহ শহিদিকে। ৩১ বলে ১১ রান করে বিদায় নেন হাসমতউল্লাহ। এরপর ইনিংসের ২৯তম ওভারে জোড়া আঘাত হানেন সাকিব। ৪৭ রান করা গুলবাদিন নাইবকে ফিরিয়ে দেওয়ার এক বল পরে বোল্ড করেন মোহাম্মদ নবীকে। নবী রানের খাতা খোলার সুযোগ পাননি।

এরপর ৩৩ ওভারের মাথায় আবার সাকিব জাদু। তার বলে সাব্বির রহমানের হাতে ক্যাচ তুলে দেন ২০ রান করা আসগর আফগান।  

এর আগে বাংলাদেশ ইনিংসে খেলতে নেমে পঞ্চম ওভারে মুজিব উর রহমানের বলে শর্ট কভারে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন লিটন দাস। ২৩ রানের উদ্বোধনী জুটি গড়ে ফিরে যান তিনি।

লিটন দাসের আউটের পর দারুণ সম্ভাবনায় ব্যাটিং করছিলেন তামিম ইকবাল ও সাকিব আল হাসান। কিন্তু তামিমের আউটের মধ্য দিয়ে ৫৯ রানের জুটি বিচ্ছিন্ন হয়। ৫৩ বলে চারটি চারে ৩৬ রান করেন বাঁহাতি ওপেনার।

পরের ওভারে রশিদ খানের প্রথম বল সাকিবের প্যাডে লাগলে আম্পায়ার আউট দেন। তবে রিভিউয়ে বল স্টাম্প মিস করায় আউটের সিদ্ধান্ত বাতিল হয়। পরে ৬৬ বলে হাফ সেঞ্চুরি ফেরেন করেন বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান। এর পর সৌম্য সরকার ১০ বল খেলে মাত্র ৩ রান করে মুজিব উর রহমানের কাছে এলবিডাব্লিউ হন। 

এরপর দলের হাল ধরেন মুশফিকুর রহিম। ইনিংসের প্রথম ছয় মেরে পূরণ করেন হাফসেঞ্চুরি। ৫৬ বলে ফিফটি করার পথে দুটি চার ও একটি ছয় মারেন এই ডানহাতি ব্যাটসম্যান। এ সময় মাহমুদউল্লাহ দারুণ সমর্থন দেন মুশফিককে। আফগান অধিনায়ক গুলবাদিন নাইবের কাছে ভাঙে তাদের ৫৬ রানের জুটি। ৩৮ বলে ২৭ রান করে মিড উইকেটে মোহাম্মদ নবীর সহজ ক্যাচ হন মাহমুদউল্লাহ।

ইনিংসের ৪৯ তম ওভারে ৮৩ রান করে দৌলত জাদরানের শিকার হন মুশফিক। ইনিংসের শেষ বলে নাইবের কাছে বোল্ড হন মোসাদ্দেক। ২৪ বলে চারটি চারে ৩৫ রান করেন তিনি।

বাংলাদেশ সময় বিকাল সাড়ে ৩টায় শুরু হওয়া ম্যাচে টসে জিতে আফগান অধিনায়ক গুলবাদিন নাইব টাইগারদের প্রথমে ব্যাট করার আমন্ত্রণ জানান।

বাংলাদেশ একাদশে দুটি পরিবর্তন আনা হয়েছে। রুবেল হোসেন ও সাব্বির রহমান বাদ পড়েছেন। দলে ফিরেছেন মোসাদ্দেক হোসেন ও মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন।

আফগান একাদশ থেকে বাদ গেছেন হযরতুল্লাহ জাজাই ও আফতাব আলম। ফিরেছেন দৌলত জাদরান। আর প্রথমবারের মতো টুর্নামেন্টে খেলতে যাচ্ছেন সামিউল্লাহ সিনওয়ারি।

শেষ চারের যুদ্ধে টিকে থাকতে হলে এবারের আসরের এখন পর্যন্ত সবগুলো ম্যাচে হারা আফগানদের বিপক্ষে আজ জিততেই হবে বাংলাদেশকে।

বাংলাদেশ একাদশ: তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম (উইকেটরক্ষক), লিটন দাস, মাহমুদুল্লাহ, মোসাদ্দেক হোসেন, মেহেদি হাসান মিরাজ, মাশরাফি বিন মুর্তজা (অধিনায়ক), মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন ও মুস্তাফিজুর রহমান।

আফগানিস্তান একাদশ: সামিউল্লাহ সিনওয়ারি, গুলবাদিন নাইব (অধিনায়ক), রহমত শাহ, হাসমতউল্লাহ শহীদী, আসগর আফগান, মোহাম্মদ নবী, ইকরাম আলি খিল (উইকেটরক্ষক), নাজিবুল্লাহ জাদরান, রশিদ খান, দৌলত জাদরান ও মুজিব উর রহমান।