Wednesday, May 22, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

চট্টগ্রামে উবারের গাড়িতে ‘ধর্ষিতা’ নারীর আত্মহত্যা, চালক গ্রেফতার

রবিবার অভিযুক্ত উবার চালক বাদশাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

আপডেট : ২৯ এপ্রিল ২০১৯, ০৩:৫৮ পিএম

বন্দর নগরী চট্টগ্রামের আগ্রাবাদ এলাকায় রাইড শেয়ারিং সার্ভিস উবারের গাড়িতে ‘ধর্ষিত’ হওয়ার পর আত্মহত্যা করেছেন এক নারী পোশাক শ্রমিক।

গত ২৪ এপ্রিল সকালে ১৭ বছর বয়সী ওই পোশাক শ্রমিক নগরীর মোগলটুলি এলাকার বাসায় আত্মহত্যা করেন। ওই বাসায় বোন-দুলাভাইয়ের সঙ্গে থাকতেন তিনি।

এদিকে, এই ঘটনায় রবিবার (২৮ এপ্রিল) অভিযুক্ত উবার চালক বাদশাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় সোমবার চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মাদ শাফি উদ্দিনের আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছে বাদশা। ডবল মুরিং জোন পুলিশের জ্যেষ্ঠ্য সহকারী কমিশনার আশিকুর রহমান এর বরাত দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে বার্তা সংস্থা ইউএনবি।

বাদশার দেওয়া তথ্যানুযায়ী, এক সময় ওই নারীর সঙ্গে একই কারখানায় কাজ করতো সে। সে সময় তাকে উত্যক্ত করত বাদশা।

পরে কারখানার চাকরি ছেড়ে উবার চালাতে শুরু করে বাদশা। গত ২৩ এপ্রিল ওই নারীকে গাড়িতে তুলে আগ্রাবাদ জাম্বুরি মাঠের কাছে নিয়ে গিয়ে দুইবার ধর্ষণ করে সে।

একপর্যায়ে ওই নারী জ্ঞান হারালে বাদশা ও তার মা আগ্রাবাদের একটি হাসপাতালে তাকে ভর্তি করে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বাদশা তাকে নিজের বাড়িতে নিয়ে যায়। কিন্তু শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে স্থানীয় একটি হাসপাতালে ভর্তি করে ধর্ষিতা নারীকে ফেলে পালায় বাদশা।

খবর পেয়ে নির্যাতিতা নারীর দুলাভাই এসে তাকে বাড়িতে নিয়ে যায়। ২৪ এপ্রিল আত্মহত্যা করে সে।

এ ঘটনায় আত্মহত্যার প্ররোচণার অভিযোগে একটি মামলা করেন ওই নারীর বোন।

বাদশার বাড়ি থেকে নির্যাতিতা নারীর ব্যাগ, মুঠোফোন এবং আইডি কার্ড উদ্ধার করেছে পুলিশ।

এদিকে, এ ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করে এক বিবৃতিতে উবার জানিয়েছে, “যে অপরাধকারীর কথা বলা হয়েছে তিনি না উবারের চালক, না উবারের সাথে কোনোভাবে যুক্ত এবং এই ঘটনাটি উবারের প্ল্যাটফর্মেও ঘটেনি। বরাবরের মতোই আইন প্রয়োগকারী কর্তৃপক্ষকে তাদের চলতি তদন্তে সাহায্য করতে আমরা সর্বদা প্রস্তুত।”

About

Popular Links