Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

সংস্কারের অভাবে বেহাল থানচির একমাত্র মন্দির

কিছুদিন পরই ছাদ দিয়ে পানি পড়তে শুরু করে, ভবনের গায়ে দেখা দেয় বড় বড় ফাটল।  ফলে ভেতরে প্রতিমা বসানোও সম্ভব হয়নি। এরপর দীর্ঘ বছর পেরিয়ে গেলেও তা সংস্কারও করা হয়নি। এ নিয়ে স্থানীয় হিন্দু সম্প্রদায়ের মধ্যে ক্ষোভ বিরাজ করছে।    

আপডেট : ২৬ মে ২০১৯, ০৩:০৬ পিএম

পার্বত্য জেলা বান্দরবানের থানচি উপজেলা সদরে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের একমাত্র শ্রী শ্রী কালি মন্দির স্থাপনের পর থেকে আর সংস্কার না করার ফলে মন্দির ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠেছে। 

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়,১৯৯৮ সালে জেলা পরিষদের অর্থায়নে নির্মিত এ মন্দিরটি নির্মাণের পর আর সংস্কার করা হয়নি। মন্দিরটি নির্মাণের সময়ই নিন্মমানের সামগ্রী ব্যবহারের অভিযোগ ওঠে। কিছুদিন পরই ছাদ দিয়ে পানি পড়তে শুরু করে, ভবনের গায়ে দেখা দেয় বড় বড় ফাটল।  ফলে ভেতরে প্রতিমা বসানোও সম্ভব হয়নি। এরপর দীর্ঘ বছর পেরিয়ে গেলেও তা সংস্কারও করা হয়নি। এ নিয়ে স্থানীয় হিন্দু সম্প্রদায়ের মধ্যে ক্ষোভ বিরাজ করছে।    

২০১৮/১৯ সালের পূজা উদ্যাপন কমিটির সভাপতি সন্তোষ কর্মকার বলেন, মন্দির ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় স্থানীয়দের উদ্যোগে জেলা পরিষদের নির্মিত ভবনের পার্শ্বে একটি টিন ছাউনি মন্দির তৈরি করে কোনো মতে পূজা কাজ করি।

শ্রী শ্রী কালি মন্দিরের সাবেক সভাপতি পলাশ মল্লিক ও সম্পাদক আঙ্গিয়া কর্মকার অভিযোগ করেন, অন্যান্য ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানগুলোতে উন্নয়ন হলেও থানচি উপজেলায় এই একটি মন্দির, তবুও মন্দিরটির উন্নয়ন করার সম্ভব হয়নি, ফলে নিয়মিত পূজা করা সম্ভব হচ্ছে না

About

Popular Links