Monday, May 20, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

মসজিদে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণে আটক ইমাম

সিলেট জেলার সীমান্তবর্তী জকিগঞ্জ উপজেলার হাজারীচক গ্রামের ৪র্থ শ্রেণীর এক ছাত্রী গত রবিবার ধর্ষণের শিকার হয়েছে। ঘটনায় জড়িত সন্দেহে হাজারীচক পশ্চিম জামে মসজিদের মহল্লা পাঞ্জেগানা মসজিদের ইমাম হাসান আহমদ ওরফে আলী হোসেনকে (২৫) স্থানীয় জনতা আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে।

আপডেট : ১৭ জুলাই ২০১৮, ০২:২৪ পিএম

স্থানীয় সূত্র জানায়, কলাকুটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণির ওই ছাত্রী রবিবার স্কুল ছুটির পর থেকে নিখোঁজ ছিলো। সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজ করেও তার সন্ধান মেলেনি। পরে রাত ৯টায় গ্রামের পাঞ্জেগানা মসজিদের ইমামের কক্ষে তল্লাশী চালিয়ে ইমামের খাটের নিচে হাত পা ও মুখ বাঁধা অচেতন অবস্থায় স্কুল ছাত্রী উদ্ধার করা হয়। 

এ ঘটনায় ওই দিন রাতেই মেয়েটির বাবা হাজারীচক গ্রামের জুবের আহমদ বাদী হয়ে শিশু নির্যাতন দমন আইনে থানায় মামলা দায়ের করলে সোমবার পুলিশ আটক ইমামকে জকিগঞ্জ সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে প্রেরণ করে। পরে আদালত তাকে জেল হাজতে প্রেরণের নির্দেশ দেন। 

আটক ইমামকে জিজ্ঞাসাবাদের বরাত দিয়ে জকিগঞ্জ থানার ওসি হাবিবুর রহমান হওলাদার জানান, স্কুল ছুটির পর সে মেয়েটিকে তার রুমে ডেকে নিয়ে যায় তার রুমে। পরে শরবতের সাথে ঘুমের ট্যাবলেট মিশিয়ে খাওয়ায়। এরপর মেয়েটি অচেতন হয়ে গেলে সে তাকে ধর্ষণ করে বলে পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে। স্কুল ছাত্রীটিকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। সেও জানিয়েছে, মসজিদের ইমাম তাকে ডেকে নিয়ে শরবত খাইয়েছে। 

কলাকুটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা আমিনা বেগম এ ঘটনায় ধিক্কার জানিয়ে বলেন, স্কুল ছুটির পর একটি মেয়ে বাড়ীতে যাওয়ার পথে মেয়েটির সাথে একজন ইমামের এমন আচরণ মেনে যায় না। তিনি ওই ইমামের কঠোর শাস্তি দাবি করেন।

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম জানান, তাদের পক্ষ থেকে ছাত্রীর পরিবারকে সব ধরণের সহযোগিতা প্রদান করা হবে। 


About

Popular Links