Tuesday, May 28, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

মাছধরা নিয়ে বিরোধে ভাতিজার হাতে চাচা খুন

সোমবার (৯ সেপ্টেম্বর) দুপুর আড়াইটার দিকে উপজেলার নেওয়াশি ইউনিয়নের শুকাতি বুটেরতল এলাকায় এঘটনা ঘটে। নাগেশ্বরী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রওশন কবীর এতথ্য নিশ্চিত করেন

আপডেট : ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৪:৫৮ পিএম

কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীতে পারিবারিক পুকুরে মাছধরাকে কেন্দ্র করে সৃষ্ট দ্বন্দ্বে নিজ ভাতিজার লাঠির আঘাতে ওহাব খান নামে একজন নিহত হয়েছেন। এঘটনায় অভিযুক্ত ভাতিজা মোস্তফা কামাল ও তার পিতা মো. আলীকে গ্রেফতার করেছে নাগেশ্বরী থানা পুলিশ। 

সোমবার (৯ সেপ্টেম্বর) দুপুর আড়াইটার দিকে উপজেলার নেওয়াশি ইউনিয়নের শুকাতি বুটেরতল এলাকায় এঘটনা ঘটে। নাগেশ্বরী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রওশন কবীর এতথ্য নিশ্চিত করেছেন।

পুলিশ ও স্থানীয়সূত্রে জানা গেছে, নিজেদের পারিবারিক পুকুরে মাছধরাকে কেন্দ্র করে ওহাব খান ও মো. আলীর মধ্যে বিবাদ শুরু হয়। তাদের বিবাদে অংশ নেয় মো. আলীর পুত্র মোস্তফা কামালসহ উভয়পক্ষের লোকজন। এসময় মোস্তফা কামালের লাঠির আঘাতে মারাত্মক আহত হন চাচা ওহাব খান। উভয়পক্ষের সংঘর্ষে আহত হয় আরও ৫/৬ জন। 

গুরুতর আহত অবস্থায় ওহাব খানকে নাগেশ্বরী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। 

নাগেশ্বরী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিকিৎসক (আরএমও) ডা. মো. আবু বকর সিদ্দিক জানান, ওহাব খানকে মৃত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়েছে। তার মাথা ও শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। আহত আরও চারজনকে নাগেশ্বরী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হয়।

নাগেশ্বরী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রওশন কবীর জানান, “নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলার প্রস্তুতি চলছে। আমরা তাৎক্ষণিকভাবে দুইজনকে গ্রেফতার করেছি। অভিযোগ পেলে সেই অনুযায়ী আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।”


About

Popular Links