Thursday, May 23, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

নওগাঁয় চালকলের দূষিত পানিতে কৃষকের মাথায় হাত

বছরের পর বছর ধরে এমন ক্ষতির মুখে পড়ে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন কৃষকেরা

আপডেট : ৩১ জানুয়ারি ২০২০, ০২:৪৭ পিএম

নওগাঁ সদর উপজেলায় নওগাঁ-সান্তাহার আঞ্চলিক মহাসড়কের সাহাপুরে কার্লভার্টের মুখে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করে চালকল স্থাপন করেছেন বেলাল হোসেন নামের এক ব্যবসায়ী। ওই কল স্থাপনের কারণে কার্লভার্ট দিয়ে পানির স্বাভাবিক প্রবাহ বাঁধার সৃষ্টি হয়েছে। এছাড়া চালকলের দূষিত পানি সরাসরি ফসলের মাঠে যাওয়ায় ফসল নষ্ট হচ্ছে বলে অভিযোগ এলাকবাসীর। বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন ভুক্তভোগীরা।

জানা গেছে, ১৯৮৪ সালে নওগাঁ-সান্তাহার আঞ্চলিক মহাসড়কের উত্তর পাশে সাহাপুরে “বেলকন চাউল কল” স্থাপন করা হয়। কিন্তু তার আগেই তৈরি করা হয় কার্লভার্ট। কার্লভার্টের মুখ ঘেঁষে চাউল কল স্থাপন করায় পাশ্ববর্তী ধামকুড়ি, সাহাপুর ও বশিপুরসহ কয়েকটি গ্রামের পানি ওই কার্লভার্ট দিয়ে যেতে পারে না। ফলে এলাকাবাসীর অভিযোগ, কালভার্টটি তাদের কোনো কাজেই আসছে না।

এছাড়া চাউল কল থেকে দূষিত কালো কালভার্টের নালা হয়ে পার্শ্ববর্তী ফসলের ক্ষেতে পড়ছে। এতে করে প্রায় শতাধিক কৃষকের ফসলের ক্ষতি হওয়ায় ঠিকমতো ফসল হয় না এবং পোকামাকড়ের আক্রমণ দেখা দেয়। চাউলকলের দূষিত পানিতে উত্তর ও দক্ষিণ পাশের প্রায় দুই থেকে আড়াইশ বিঘা জমিতে ফসলের ক্ষতি হচ্ছে। বছরের পর বছর ধরে এমন ক্ষতির মুখে পড়ে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন কৃষকেরা। স্থানীয়রা বিষয়টি চাউল কল মালিককে জানানো পরও কোনো পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়নি বলেও অভিযোগ রয়েছে।

দোগাছী গ্রামের হান্নান বলেন, চাল কলের লোকেরা আগে গাড়ি দিয়ে দূষিত পানি বাইরে নিয়ে ফেলতো। কিন্তু কয়েক বছর ধরে তারা পানি কালভার্টের নালায়ই ফেলছে। কালভার্টের ভেতর দিয়ে নালা হয়ে পানি সরাসরি যাচ্ছে ফসলের ক্ষেতে। ফলে মাঠেল ফসল পোকা ধরে নষ্ট হয়ে যাচ্ছে।

সাহাপুর গ্রামের মুঞ্জুর রহমান বাবু বলেন, আগে জমিতে যে পরিমাণ ফসল হতো এখন তার অর্ধেকও হয় না।

বেলকন গ্রুপের চেয়ারম্যান বেলাল হোসেন বলেন, “ক্ষেতে শুধু আমার একাই চাউল কলের পানি যায় না, অন্যান্য চাউল কলের পানিও যায়।”

নওগাঁ সদর উপজেলার কৃষি কর্মকর্তা একেএম মফিদুল ইসলাম বলেন, “দূষিত পানি ফসলি জমিতে পড়লে ফসল নষ্ট হবে। যদি ওই চাউল কলের দূষিত পানি ফসলের মাঠে যায় তাহলে ফসল রক্ষার্থে পদক্ষেপ নিতে হবে।”

About

Popular Links