• বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ১২, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:১৮ রাত

অজ্ঞাত রোগে ত্রিপুরাপল্লীতে ৪ শিশুর মৃত্যু

  • প্রকাশিত ১০:০৮ রাত আগস্ট ২৬, ২০১৮
chattagram
মানচিত্রে হাটহাজারী।

হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে মোট ২২ জন শিশু। এদের সকলেরই বয়স এক থেকে ১০ বছরের মধ্যে।  

হাটহাজারীর উদালিয়ায় ত্রিপুরাপল্লীতে গত ছয় দিনে মৃতুবরণ করেছে চার শিশু। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে আরও ২২ জনকে।

আক্রান্ত শিশুদের সবার জ্বর এবং শরীরে র‌্যাশের চিহ্ন রয়েছে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা। তবে তাদের কী রোগ, এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

রোববার সকালে হাটহাজারীর ফরহাদাবাদ ইউনিয়নের ২ নম্বর পশ্চিম উদালিয়া ওয়ার্ডের সোনাইরকূল ত্রিপুরা পল্লীতে শিশুদের রোগাক্রান্ত হওয়ার কথা জানতে পারে স্থানীয় উপজেলা প্রশাসন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জানান, প্রায় চার কিলোমিটার হেঁটে দুর্গম ওই পাহাড়ি এলাকার ত্রিপুরা পল্লীতে যেতে হয়। পল্লীর কাছেই উদালিয়ায় কমিউনিটি ক্লিনিক থাকলেও এলাকার বাসিন্দারা সেখানে চিকিৎসা নিতে যান না।

ফরহাদাবাদ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ইদ্রিস জানান, ওই এলাকায় দুটি ত্রিপুরাপল্লীতে প্রায় দেড়শ পরিবার বসবাস করে। তিনি বলেন, “আগে তিন শিশু মারা গেলেও আমরা জানতে পারি আজকে (রোববার) সকালে অন্নবালা ত্রিপুরা নামে সাত বছরের এক শিশু মারা যাওয়ার পর।”

গত ২১ অগাস্ট অন্ন রায় ত্রিপুরা (৫), কিশামনি ত্রিপুরা (৩) এবং ২৪ অগাস্ট সৌম্য রায় ত্রিপুরা (৪) মারা যায় বলে জানান ইউপি চেয়ারম্যান।

হাটহাজারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স জরুরি বিভাগ থেকে রোববার সন্ধ্যায় জানানো হয়, হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে মোট ২২ জন শিশু। এদের সকলেরই বয়স এক থেকে ১০ বছরের মধ্যে।

সন্ধ্যায় চট্টগ্রাম জেলা সিভিল সার্জন ডা. আজিজুর রহমান সিদ্দিকীসহ স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তারা সেখানে যান। 

রোগের বিষয়টি নিশ্চিত করা যায়নি উল্লেখ করে ডা. ইমতিয়াজ বলেন, গুরুতর আক্রান্ত তিনজন এবং অন্য দুজনসহ পাঁচজনের রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকায় পাঠানো হচ্ছে।