• রবিবার, নভেম্বর ১৭, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৪৮ রাত

মেঘনা নদীতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন, ড্রেজার জব্দ

  • প্রকাশিত ১১:৪১ রাত সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৮
বালু উত্তোলন
নদী থেকে বালু উত্তোলনের চিত্র (ফাইল ছবি)। ছবি: সংগৃহীত

মেঘনা উপজেলার নলচর এলাকায় দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক), উপজেলা প্রশাসন ও থানা পুলিশের কর্মকর্তাদের সমন্বয়ে গঠিত টিম এ অভিযান চালায়।

কুমিল্লার মেঘনা নদী থেকে অবৈধভাবে ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলনের অভিযোগে ২২টি ড্রেজার জব্দ করা হয়েছে। এ ছাড়াও এ ঘটনায় জড়িত তিন জনকে আটকের পর ভ্রাম্যমাণ আদালতে ৭ দিন করে বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। 

কুমিল্লা জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এমদাদুল হক তালুকদারের আদালত মঙ্গলবার এই দণ্ড দেন। মেঘনা উপজেলার নলচর এলাকায় দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক), উপজেলা প্রশাসন ও থানা পুলিশের কর্মকর্তাদের সমন্বয়ে গঠিত টিম এ অভিযান চালায়।

দুদক-কুমিল্লা সমন্বিত কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক আবু হেনা আশিকুর রহমান ঘটনাস্থল থেকে মোবাইল ফোনে জানান, দীর্ঘদিন ধরে একটি অসাধু চক্র মেঘনা নদীর মেঘনা উপজেলার চালিভাঙ্গা ইউনিয়নের নলচরসহ আশপাশের এলাকা দিয়ে অবৈধভাবে ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলন করে আসছে এমন অভিযোগের ভিত্তিতে ওই এলাকায় এই অভিযান পরিচালনা করা হয়।

এ ছাড়াও রাত সাড়ে ৭টায় ভ্রাম্যমান আদালতের প্রধান নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এমদাদুল হক তালুকদার জানান, ‘মঙ্গলবার দিনভর নদীর নলচর এলাকায় অভিযান চালিয়ে ২২টি ড্রেজার জব্দ করা হয়েছে এবং ৩ জনকে আটকের ভ্রাম্যমান আদালত বসিয়ে ৭ দিন করে বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।’