• সোমবার, আগস্ট ২৬, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:১৬ রাত

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে কূটনীতিকদের উদ্বেগ

  • প্রকাশিত ০৮:২৩ রাত সেপ্টেম্বর ২৭, ২০১৮
‘ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন, ২০১৮’
ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের বিভিন্ন ধারা নিয়ে উদ্বেগ জানান বাংলাদেশে নিযুক্ত বিদেশি কূটনীতিকরা। ছবি: সংগৃহীত

সম্প্রতি জাতীয় সংসদে পাস হওয়া ‘ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন, ২০১৮’-এর বিষয়ে এক যৌথ বিবৃতি দিয়েছেন তারা।

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের বিভিন্ন ধারা নিয়ে ফের উদ্বেগ জানিয়েছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত বিদেশি কূটনীতিকরা। বৃহস্পতিবার ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) সদস্য রাষ্ট্রের মিশন প্রধান, ইউরোপীয় ইউনিয়নের প্রতিনিধিদল, নরওয়ে ও সুইজারল্যান্ড মিশনের প্রধানরা এ উদ্বেগের কথা জানান।

ইউএনবি-এর বরাতে জানা গেছে, সম্প্রতি জাতীয় সংসদে পাস হওয়া ‘ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন, ২০১৮’-এর বিষয়ে এক যৌথ বিবৃতি দিয়েছেন তারা।

যৌথ বিবৃতিতে কূটনীতিকরা বলেছেন, “আইনটি মত প্রকাশের স্বাধীনতা এবং গণমাধ্যমের স্বাধীনতাকে সঙ্কুচিত করবে।” কূটনীতিকরা আরও বলেন, “বর্তমান আইনটি দমনের ক্ষেত্রে ব্যবহার হতে পারে।”

বিবৃতিতে বলা হয়, “আমরা এই আইন নিয়ে আলোচনা চালিয়ে যাওয়ার জন্য এবং গত মে মাসে ইউনিভার্সাল পিরিয়ডিক রিভিউ-এর সময় গৃহীত প্রতিশ্রুতিগুলো অনুসরণ করতে সরকারকে আহ্বান জানাই। যাতে ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্ট মানবাধিকারের সর্বজনীন ঘোষণাপত্র এবং বাংলাদেশের সংবিধানে থাকা বিধানগুলো নিশ্চিত করবে।”

ইইউ রাষ্ট্রদূত রেন্সজে তিরিঙ্ক, ইতালির রাষ্ট্রদূত মারিও পালমা, স্প্যানিশ রাষ্ট্রদূত ড. আলভারো দা সালাস গিমেনেস, সুইডেনের রাষ্ট্রদূত চারলোত্তা স্ক্লেটার, ফ্রান্সের রাষ্ট্রদূত মারিয়ে অনিক, জার্মান রাষ্ট্রদূত পিটার ফাহরেনহোজ, নেদারল্যান্ডের রাষ্ট্রদূত হ্যারি, ডেনমার্কের রাষ্ট্রদূত উইনি এস্ত্রাপ পিটারসন, ভারপ্রাপ্ত ব্রিটিশ হাইকমিশনার কানবার হোসেন বিবৃতিটিতে স্বাক্ষর করেন।