• বুধবার, নভেম্বর ১৩, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৭:৩৮ রাত

ওসমানীতে বিমানের জরুরি অবতরণ

  • প্রকাশিত ০৮:৩১ রাত অক্টোবর ৩, ২০১৮
ওসমানীতে বিমানের জরুরি অবতরণ
ওসমানীতে বিমানের জরুরি অবতরণ (ফাইল ছবি)। ছবি: সৌজন্যে

বিমানটির ডান পাশের চাকায় সমস্যা দেখা দিয়েছিল।

সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে জরুরি অবতরণ করেছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি উড়োজাহাজ। বুধবার বিকাল ৪টা ২০ মিনিটে ঢাকা থেকে আসা ফ্লাইটটি জরুরি অবতরণ করে।

জানা গেছে, ঢাকা থেকে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের বিজি ৬০১ নং ফ্লাইটটি ৬৫ জন যাত্রী নিয়ে সিলেটে আসে। ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণের সময় বিমানের ল্যান্ডিং চাকায় সমস্যা দেখা দেয়। বিষয়টি যাত্রীদের অবহিত করেন পাইলট। ওই সময় যাত্রীদের মধ্যে আতঙ্ক দেখা দেয়। শুরু হয় তাদের কান্না। পরে জরুরি অবতরণ করে ফ্লাইটটি। তবে কোনও ক্ষয়ক্ষতি হয়নি।

ওই ফ্লাইটে থাকা সিলেট আওয়ামী লীগের এক নেতা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, “আল্লাহর শুকরিয়া যে দুর্ঘটনা ঘটেনি। বিমানটির ডান পাশের চাকায় সমস্যা দেখা দিয়েছিল। এ বিষয়টি জানার পর যাত্রীদের অনেকেই কান্নাকাটি শুরু করেন, অনেকেই আল্লাহর নাম জপতে থাকেন। বিমানের পাইলট খুবই দক্ষতার সাথে দুইবারের চেষ্টায় অবতরণ করেন।”

তিনি আরও বলেন, “ফ্লাইট ল্যান্ড করার পর আমরা চারপাশে ফায়ার ব্রিগেডের গাড়ি, নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের প্রস্তুত দেখতে পাই।”

ওই ফ্লাইটে থাকা স্বেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক সুব্রত পুরকায়স্থ বলেন, “বিমানের চাকায় সমস্যা হওয়ার পর পাইলট বিষয়টি যাত্রীদের জানান। তিনি প্রথম চেষ্টায় অবতরণ করতে পারেননি। পরে দ্বিতীয়বারের চেষ্টায় জরুরি অবতরণ করেন।”

এ বিষয়ে বিমানের সহকারী স্টেশন ম্যানেজার ওমর হায়াত বলেন, “চাকায় সামান্য সমস্যা হয়েছিল। কোনো ধরনের ক্ষয়ক্ষতি ছাড়াই নিরাপদে ফ্লাইট অবতরণ করে।”

এদিকে ওসমানী বিমানবন্দরের ব্যবস্থাপক হাফিজ উদ্দিন আহমদ জানান, “বিমানের পেছনের বাতাস কমে গেলেও বিমানটির অবতরণে কোন সমস্যা হয়নি।” সন্ধ্যায় ইউএস বাংলার একটি ফ্লাইটে বিমানের একটি চাকা সিলেটে নিয়ে আসা হয়। চাকাটি পরিবর্তন করার পর বিমানটি ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাবে বলে জানান তিনি। 

তবে বিমানটি জরুরি অবতরণ করানো হয়নি বলে দাবি করেন তিনি।