• সোমবার, জানুয়ারী ২০, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৪৭ সকাল

জলবায়ু পরিবর্তন: বাস্তুহারা হবে ২ লাখ বাংলাদেশি

  • প্রকাশিত ০৮:৩৪ রাত অক্টোবর ২৩, ২০১৮
climate change
জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে মারাত্মক ঝুঁকিতে রয়েছে বাংলাদেশ। ছবি- সৈয়দ জাকির হোসেন/ঢাকা ট্রিবিউন

চট্টগ্রাম ও খুলনা, দেশের অন্য বড় দুটি শহরে বাইরের জেলা থেকে বছরে ১৫ থেকে ৩০ হাজার  মানুষ প্রবেশ করবে। ফলে এসব জেলাগুলোর জনসংখ্যা ও অর্থনীতিতে বাড়তি চাপ তৈরি হবে।

জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে বাংলাদেশের উপকুলীয় অঞ্চলে থাকা প্রায় ২ লাখ বাংলাদেশিকে তাদের বসবাসের জায়গা ছেড়ে অন্যত্র চলে যেতে হবে। বিজ্ঞান সাময়িকি ‘ন্যাচার’ এ সম্প্রতি প্রকাশিত এক গবেষণা প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়। 

বন্যা, ভূমিতে লবনাক্ততা বেড়ে যাওয়া, ফসলের উৎপাদন কমে যাওয়া এবং এর ফলে সেখানকার অধিবাসীদের পেশা হুমকির মুখে পড়া, প্রভৃতি কারণে তাদেরকে স্থানান্তরিত হতে হবে। এই গবেষণার গবেষক ইন্টারন্যাশনাল ফুড পলিসি রিসার্চ ইন্সটিটিউট (আইএফপিআরআই) এর গবেষক ভালেরি মুলার এবং ওহাইও স্টেট ইউনিভার্সিটির সহযোগী অধ্যাপক জয়েস শেন এ কথা জানান।

গবেষকরা তাদের এই গবেষণায়, বসবাসের জায়গা পরিবর্তন ও উৎপাদন সম্পর্কিত প্রশাসনিক তথ্য- যাতে উপকুলীয় অঞ্চলে বসবাসকারী ৫ লাখ পরিবারের এক বছরের তথ্য রয়েছে এবং সেখানকার পরিবেশ বিষয়ক সরেজমিন তথ্য সন্নিবেশ করেছেন। 

গবেষণায় দেখা যায়, সল্প লবনাক্ত অঞ্চলের পরিবারগুলোর চেয়ে বেশি লবনাক্ত অঞ্চলের পরিবারগুলো শস্য উৎপাদনে বাৎসরিক ২১ শতাংশ কম রাজস্ব আয় করছে। 

মুলার এবং শেন বলেন, “লবনাক্তার ফলে আঞ্চলিক (দেশের ভেতরে) স্থান পরিবর্তনের ঘটনা বেশি ঘটছে এবং দেশের বাইরে চলে যাওয়ার ঘটনা কম ঘটছে।”

তারা বলেন, “এখানকার কিছু গবেষনায় দেখা যায় যারা সাধারণত দেশের বাইরে যেতে ইচ্ছুক ছিল তারা হয়তো নতুন জলীয় পরিবেশে জীবিকায় বেশি সুবিধা নিতে দেশেই থেকে যাচ্ছে।”

মাটির লবনাক্ততা বেড়ে যাওয়ার ফলে জলাশয় সংশ্লিষ্ট পেশায় মানুষের যুক্ত হওয়ার পরিমাণ বাড়বে। ফলে সাধারণ কৃষিকাজের সঙ্গে যারা যুক্ত তারা সমস্যায় পড়বে। এছাড়া বাঁধের মত অবকাঠামোগুলো পড়বে হুমকির মুখে, কারণ জলাশয়ের মাধ্যমেই জীবিকা নির্বাহের পরিমাণ বাড়ার ফলে এসব অবকাঠামোর রক্ষণাবেক্ষণ অবহেলিত হবে। 

তারা কোথায় যাবে?

নিজ অঞ্চল থেকে চলে যাওয়া এই মানুষেরা অধিকাংশ ক্ষেত্রেই রাজধানী ঢাকায় এবং উপকুলীয় অঞ্চলের আশেপাশের জেলাগুলোতে প্রবেশ করবে। 

চচট্টগ্রাম ও খুলনা, দেশের অন্য বড় দুটি শহরে বাইরের জেলা থেকে বছরে ১৫ থেকে ৩০ হাজার মানুষ প্রবেশ করবে। ফলে এসব জেলাগুলোর জনসংখ্যা ও অর্থনীতিতে বাড়তি চাপ তৈরি হবে। 

গবেষণায় বলা হয়, জলবায়ুর এই পরিবর্তনের ফলে সবচেয়ে ঝুঁকিতে পড়বে অতি দরিদ্র পরিবারগুলো। অন্যত্র চলে যাওয়ার মত অর্থনৈতিক অবস্থাও তাদের নেই অথবা যেখানে ছিল সেখানেও জীবিকা নির্বাহের মতো কাজ তারা খুঁজে পাবে না।