• বুধবার, ফেব্রুয়ারি ১৯, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ০২:২২ দুপুর

অসুস্থ ক্রিকেটার চামেলীর চিকিৎসার দায়িত্ব নিলেন প্রধানমন্ত্রী

  • প্রকাশিত ০৮:৪৫ রাত অক্টোবর ৩১, ২০১৮
chameli
চামেলীকে তার বাসায় দেখতে যান রাজশাহী সিটি করপোরেশরেন মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন। ছবি- ঢাকা ট্রিবিউন

বিষয়টি নিশ্চিত করে রাজশাহীর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আলমগীর কবির বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী তার চিকিৎসার সমস্ত দায়ভার নিয়েছেন।

জাতীয় মহিলা ক্রিকেট দলের সাবেক সদস্য অসুস্থ চামেলী খাতুনের চিকিৎসার সার্বিক দায়িত্ব নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বুধবার সন্ধ্যায় চামেলীকে ফোন দিলে তিনি মুঠোফোনে বলেন, “এই মাত্র একটি খবর পেলাম প্রধানমন্ত্রী আমার চিকিৎসার দায়িত্ব গ্রহণ করবেন। এছাড়াও বিসিবি সভাপতি আজকে (বুধবার) বলেছেন- ঢাকায় আমার চিকিৎসার রিপোর্ট দেখাবেন। এরপর উন্নত চিকিৎসার জন্য যদি ভারত কিংবা অন্য কোন দেশে পাঠাতে হয়, তাহলে তারা আমাকে পাঠানোর ব্যবস্থা করবেন। আর আজকে এমনিতে অনেকে বিভিন্নভাবে আর্থিক ও সহানুভূতি জানিয়েছেন।”  

বিষয়টি নিশ্চিত করে রাজশাহীর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আলমগীর কবির বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী তার চিকিৎসার সমস্ত দায়ভার নিয়েছেন। এজন্য সন্ধ্যা ৭টায় জেলা প্রশাসন থেকে চামেলীর বাড়িতে একটি প্রতিনিধি দল গিয়েছিল।

এদিকে বুধবার সকালে চামেলীকে তার বাসায় দেখতে যান রাজশাহী সিটি করপোরেশরেন মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন। এ সময় তিনি চামেলীর চিকিৎসার জন্য নগদ এক লাখ টাকা আর্থিক সহযোগিতা প্রদান করেন।

এ সময় মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন সাংবাদিকদের বলেন, “অসুস্থ ক্রিকেটারের পাশে আমার  দাঁড়ানো উচিত মনে করেই তাকে দেখতে এসেছি। চামেলী ও তার পরিবারের সদস্যদের সাথে কথা বলে বুঝতে পারলাম, তারা নিদারুণ সংকটে আছে। চামেলী খাতুনের চিকিৎসার পুরোপুরি ব্যয়ভার মেটাতে যা করা দরকার করবো। সমাজের স্বচ্ছল ব্যক্তিদের সাথে বিষয়টি নিয়ে আলোচনাও করবো। জরার্জীন যে বাড়িতে তারা বসবাস করছেন, সেটি নিয়ে কী করা হয় পরবর্তীতে সেটাও করবো। এছাড়া চামেলীর বিষয়টি প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আর্কষণ করবো।”

উল্লেখ্য, ২০১১ সালে আবহনী ক্রীড়া চক্রের মাঠে তিনি অনুশীলনের সময় চামেলীর পায়ের লিগামেন্ট ছিঁড়ে যায়। এতে মেরুদণ্ডের দুই হাড়ের ফাঁকে থাকা নরম ডিস্কগুলো নষ্ট হয়ে যাওয়ায় তার শরীরের পুরো ডান পাশ অবশ হয়ে যাচ্ছে। এ অবস্থায় দ্রুত দেশের বাইরে সার্জারির পরামর্শ দিয়েছেন চিকিৎসকরা। এতে প্রয়োজন অন্তত ১০ লাখ টাকা। কিন্তু সেই সামর্থ্য নেই চামেলীর পরিবারের।