• শুক্রবার, ডিসেম্বর ০৬, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৬:১৭ সন্ধ্যা

কিং খানের ৫৩তম জন্মদিন আজ

  • প্রকাশিত ০২:৫০ দুপুর নভেম্বর ২, ২০১৮
শাহরুখ খান
আজ শাহরুখের জন্মদিন। ছবি: সংগৃহীত

ভক্তদের জন্য নিজের জন্মদিনে উপহার দিলেন তার বহুপ্রতীক্ষিত নতুন ছবি ‘জিরো’।

বলিউডের ইতিহাসের অন্যতম সেরা অভিনেতা, বলিউডের বাদশা শাহরুখ খানের আজ ৫৩তম জন্মদিন।

৫২ বছর আগে এই দিনেই ভারতের নয়া দিল্লিতে এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন তিনি।

ঘড়ির কাটায় ১২টা বাজতেই শুরু হয়ে গেছে জন্মদিনের শুভেচ্ছা পাওয়া। গতরাত থেকে বলিউডের শুভানুধ্যায়ীরা এসআরকে-কে পাঠাচ্ছেন জন্মদিনের শুভেচ্ছা। সবার আগে তাকে শুভেচ্ছা জানান তার ঘনিষ্ঠ বন্ধু এবং ছবি নির্মাতা করণ জোহর। 

তবে জন্মদিনের শুভেচ্ছার পাশাপাশি শুভকামনাও পাচ্ছিলেন শাহরুখ তার নতুন ছবির জন্য। ভক্তদের হৃদয়ে রাজত্ব করা এই অভিনেতা তার জন্মদিনের এই শুভক্ষণে উপহার না নিয়ে বরং তার ভক্তদের উপহার দিচ্ছেন তার বহুপ্রতীক্ষিত নতুন ছবি ‘জিরো’। 

আনন্দ এল রায়ের নির্দেশনায় শাহরুখের এই ছবিতে তার সাথে অভিনয় করবে আনুস্কা শর্মা আর ক্যাটরিনা কায়েফ। এই ছবিতে শাহরুখ অভিনয় করবেন একজন বামনের চরিত্রে। তবে আনুস্কা আর ক্যাটরিনার চরিত্রটি নিয়ে এখনও কোন কিছু জানানো হয় নি।

‘জিরো’ মুক্তি পাচ্ছে এ বছর ২১ ডিসেম্বর। 

অভিনেতা হিসেবে কিং খানের পথচলার শুরু ১৯৮৯ সাল থেকে। ‘ফৌজি’ টিভি সিরিজ দিয়ে শুরু হওয়া এই যাত্রায় আরও কয়েকটি টিভি ধারাবাহিক তার শুরুর দিকের অভিজ্ঞতার খাতায় নাম লেখায়।

বলিউডে তার অভিষেক হয় ১৯৯২ সালে ‘দিওয়ানা’ ছবির হাত ধরে। আর তাতেই কেল্লা ফতেহ! এ ছবিতে তার দুর্দান্ত কাজের জন্য অর্জন করেন সেরা নবাগত অভিনেতা হিসেবে ফিল্মফেয়ার পুরস্কার। ‘চমৎকার, ‘দিল আসনা হে’ ও ‘রাজু বান গেয়া জেন্টলম্যান’এর মতো ছবিতে অভিনয় করে সকলের নজর কাড়েন তিনি। ঠিক তার পরের বছরই ‘ডর’ ও ‘বাজিগর’ ছবিতে নিজের অভিনয়ের জাদু দিয়ে সবাই মুগ্ধ করে ঘর করে নেন দর্শকের মনে, পৌঁছে যান সাফল্যের চুড়ায়।

তার অভিনয়ের খ্যাতি আরও বাড়তে থাকে যশরাজ ফিল্মসের ছবিতে ধারাবাহিকভাবে অভিনয় করে। একের পর এক হিট ছবি দিয়ে জনপ্রিয়তার তুঙ্গে অবস্থান করেন শাহরুখ। 

'ডর' মুক্তি পায় ১৯৯৩-এ। 



'দেবদাস ' মুক্তি পায় ২০০২-এ। 



'দিলওয়ালে দুলহানিয়া লে জায়েঙ্গে ' মুক্তি পায় ১৯৯৫-এ।



'চাকদে ইন্ডিয়া' মুক্তি পায় ২০০৭-এ। 



'মাই নেইম ইজ খান' মুক্তি পায় ২০১০-এ। 

‘করন অর্জুন’, ‘দিলওয়ালে দুলহানিয়া লে জায়েঙ্গে’, ‘ইয়েস বস’, ‘পারদেশ’, ‘দিল তো পাগল হ্যায়’, ‘ডুপ্লিকেট’, ‘কুছ কুছ হোতা হ্যায়’, ‘দিল সে’, ‘মোহাব্বাতে’, ‘অশোকা’, ‘কাভি খুশি কাভি গাম’, ‘দেবদাস’, ‘ডন’, ‘ডন-২’, ‘রাব নে বানাদি জোরি’, ‘জাব তাক হে জান’, ‘চেন্নাই এক্সপ্রেস, ‘রইস’ প্রভৃতি ছবির মধ্য দিয়ে অভিনেতা হিসেবে নিজেকে অন্যরকম উচ্চতায় নিয়ে গেছেন শাহরুখ। 

‘ডর’, ‘দেবদাস’, ‘চাক দে ইন্ডিয়া’, ‘মাই নেইম ইজ খান’এর মতো মুভিতে তার অনন্যসাধারণ অভিনয় দক্ষতা বিশ্বব্যাপী তার এই নামের কারণ বাতলে দেয়।