• শনিবার, জানুয়ারী ১৮, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৯:৪৫ সকাল

খাগড়াছড়িতে দুর্বৃত্তের গুলিতে ইউপিডিএফ কর্মী নিহত

  • প্রকাশিত ১০:২৮ রাত জানুয়ারী ১৯, ২০১৯
খাগড়াছড়ি

জেলা সদরের গাছবানমুখ এলাকায় দুর্বৃত্তরা তাকে নিজ বাড়িতে গুলি করে পালিয়ে যায়

খাগড়াছড়িতে দুর্বৃত্তের গুলিতে নিহত হয়েছেন পিপলু বৈষ্ণব ত্রিপুরা ওরফে রনি নামে ইউপিডিএফ প্রসীত গ্রুপের এক কর্মী। 

শনিবার (১৯ জানুয়ারি) রাত সাড়ে ৮টার দিকে জেলা সদরের গাছবানমুখ এলাকায় দুর্বৃত্তরা তাকে নিজ বাড়িতে গুলি করে পালিয়ে যায়। নিহত রনি খাগড়াছড়ির রামগড় উপজেলার বল্টুরাম এলাকার মৃত নিগমানন্দ বৈষ্ণব ত্রিপুরার ছেলে। 

খাগড়াছড়ি সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাহাদাত হোসেন টিটো ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। 

পুলিশ জানায়, রনি পাহাড়ের আঞ্চলিক সংগঠন ইউপিডিএফ প্রসীত গ্রুপের সামরিক শাখার সাথে সম্পৃক্ত ছিল। ২০১৬ সালের ২৩ নভেম্বর যৌথ বাহিনীর অভিযানে তাকে অস্ত্রসহ আটক করা হয়েছিল। কারাগার থেকে বের হয়ে আবারও সে ইউপিডিএফ’র সাথে সম্পৃক্ত হয়ে পড়ে। 

নিহত রনিকে নিজেদের সাবেক কর্মী দাবি করে ইউপিডিএফ প্রসীত গ্রুপের কেন্দ্রীয় প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক নিরণ চাকমা বলেন, একটি দূর্ঘটনায় পায়ে আঘাত পেয়ে শারীরিক ভাবে প্রতিবন্ধী হয়ে পড়েছিল রনি। ইউপিডিএফ’র সাথে সম্পৃক্ত থাকায় জনসংহতি সমিতির সংস্কারবাদীরা তাকে হত্যা করেছে। 

তবে ইউপিডিএফর অভিযোগ অস্বীকার করেছেন জনসংহতি সমিতির এমএন লারমা গ্রুপের কেন্দ্রীয় ছাত্র ও যুব বিষয়ক সম্পাদক সুদর্শন চাকমা।