• বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ১৪, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৪:২৫ বিকেল

সাবেক সংসদ সদস্য তাজুল ইসলাম মারা গেছেন

  • প্রকাশিত ১০:৩৯ রাত জানুয়ারী ৩১, ২০১৯
অ্যাডভোকেট তাজুল ইসলাম
সাবেক সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট তাজুল ইসলাম। ছবি: ঢাকা ট্রিবিউন

রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন

রাজশাহী দুর্গাপুর ও পুঠিয়া নিয়ে গঠিত রাজশাহী-৫ আসনের সাবেক সংসদ ও রাজশাহী জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট তাজুল ইসলাম মোহাম্মদ ফারুক হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন (ইন্নালিল্লাহে....রাজিউন)। 

বৃহস্পতিবার (৩১ জানুয়ারি) রাত পৌনে ৮টায় রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো ৭০ বছর। 

শুক্রবার (০১ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১০টায় নগরীর তেরোখাদিয়ায় অবস্থিত শহিদ এএইচএম কামারুজ্জামান বিভাগীয় স্টেডিয়ামে প্রথম জানাজা, বাদ জুমআ দুর্গাপুর পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ে দ্বিতীয় এবং আমগাছীতে তার তৃতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হবে।

মরহুমের পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় উপশহরস্থ নিজ বাড়িতে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন তাজুল ইসলাম। এরপর তাকে দ্রুত রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। হাসপাতালে নেওয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। তার মৃত্যুতে আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক অঙ্গনের নেতৃবৃন্দ শোকপ্রকাশ করেছেন। গভীর শোকপ্রকাশ করেছেন রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন।

শোক বার্তায় মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, সাবেক এমপি তাজুল ইসলাম একজন বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ ছিলেন। রাজশাহীর রাজনৈতিক অঙ্গনে তার অবদান চিরকাল অক্ষুন্ন থাকবে। আমি তার আত্মার মাগফিরাত কামনা ও শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যবৃন্দের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করছি।