• শুক্রবার, এপ্রিল ০৩, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:৫৩ দুপুর

প্রাণির প্রতি নিষ্ঠুরতায় সাজা বাড়াতে সংসদে বিল

  • প্রকাশিত ০৬:৪৭ সন্ধ্যা মার্চ ১০, ২০১৯
ফাইল ছবি
ছবি: সৌজন্যে।

প্রস্তাবিত প্রাণি কল্যাণ বিলে নিষ্ঠুরতা বা অন্য কোনো কারণে আহত প্রাণির চিকিৎসা এবং তত্ত্বাবধানের ব্যবস্থার বিধানের প্রস্তাব করা হয়েছে

প্রাণির প্রতি নিষ্ঠুরতা প্রতিরোধ, এগুলোর প্রতি সদয় আচরণ ও দায়িত্বশীল প্রতিপালনের মাধ্যমে প্রাণি কল্যাণ নিশ্চিতকরণ এবং প্রাণির প্রতি নিষ্ঠুরতার সাজা বাড়ানোর উদ্দেশ্যে প্রয়োজনীয় বিধানের প্রস্তাব করে সংসদে প্রাণি কল্যাণ বিল, ২০১৯ উত্থাপন করা হয়েছে।

রবিবার, মৎস্য ও প্রাণি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী আশরাফ আলী খান খসরু বিলটি উত্থাপন করেন বলে বাসস জানিয়েছে।

বিলে প্রত্যেক প্রাণির মালিক বা তত্ত্বাবধানকারীর দায়িত্ব যৌক্তিক কারণ ছাড়া ওই প্রাণির প্রতি কল্যাণকর ও মানবিক আচরণ করা এবং নিষ্ঠুর আচরণ থেকে বিরত থাকতে সুনির্দিষ্ট বিধানের প্রস্তাব করা হয়েছে। বিলে প্রাণিকে অতিরিক্ত পরিশ্রম করানো বা অপ্রয়োজনীয়ভাবে প্রহার, প্রয়োজনীয় খাদ্য না দেয়া, বসবাসের যথাযথ ব্যবস্থা না করা, উত্যক্ত করা, ক্ষতিকর ওষুধ প্রয়োগ, আহত প্রাণির চিকিৎসা না করা, অনুমোদন ছাড়া বিনোদন বা ক্রীড়ায় ব্যবহারকে প্রাণির প্রতি নিষ্ঠুর আচরণ হিসাবে নির্দিষ্ট করে দেয়া হয়েছে। অবশ্য প্রয়োজনে উল্লেখিত কোনো কোনো কর্মকান্ডকে নিষ্ঠুরতা থেকে অব্যাহতি দেয়ার বিধানেরও প্রস্তাব করা হয়েছে।

প্রস্তাবিত প্রাণি কল্যাণ বিলে নিষ্ঠুরতা বা অন্য কোনো কারণে আহত প্রাণির চিকিৎসা এবং তত্ত্বাবধানের ব্যবস্থার বিধানের প্রস্তাব করা হয়েছে। এছাড়াও, পোষা প্রাণির বাণিজ্যিক উৎপাদন ও ব্যবস্থাপনাকে নিবন্ধনের আওতায় আনার বিধানের প্রস্তাব করা হয়েছে। এছাড়াও উল্লেখিত বিধান লংঘনকে অপরাধ হিসেবে গণ্য করে বিচার ও সুনির্দিষ্ট শাস্তির ব্যবস্থার প্রস্তাব করা হয়েছে এই বিলে।

অন্যদিকে প্রস্তাবিত বিলে বিদ্যমান প্রাণির প্রতি নিষ্ঠুরতা আইন রহিত করারও প্রস্তাব করা হয়।

পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে আগামী ৪৫ দিনের মধ্যে সংসদে রিপোর্ট প্রদানের জন্য বিলটি মৎস্য ও প্রাণি সম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটিতে প্রেরণ করা হয়।