• শুক্রবার, ডিসেম্বর ১৩, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৫৬ রাত

ছাত্রলীগ: রোকেয়া হলের ব্যালট ‘ডাকাতি’ করেছে নুরুরা

  • প্রকাশিত ০৪:৪৩ বিকেল মার্চ ১১, ২০১৯
ছাত্রলীগ সংবাদ সম্মেলন
ডাকসু নির্বাচন নিয়ে সোমবার মধুর ক্যান্টিনে প্রেস ব্রিফিং করে ছাত্রলীগ। ছবি: মেহেদি হাসান

ভোট বর্জন এবং নতুন করে ভোট গ্রহণের দাবিকে হাস্যকর বলে আখ্যা দিয়েছে সংগঠনটি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ ও হল সংসদ নির্বাচন বর্জন করে ৬টি প্যানেলের ভোট বর্জন এবং নতুন করে ভোট গ্রহণের দাবিকে হাস্যকর বলে আখ্যা দিয়েছে ছাত্রলীগ। এছাড়াও, সোমবার সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের রোকেয়া হল থেকে ট্রাংকভর্তি ব্যালট উদ্ধারের ঘটনাকে কোটা আন্দোলনকারীদের প্যানেল বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের ভিপি প্রার্থী নুরুল হক নুরদের ব্যালট ‘ডাকাতি’ বলে অভিযোগ করেছেন সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক ও ডাকসুর জিএস প্রার্থী গোলাম রাব্বানী।

সোমবার বিকেল ৪টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এ কথা বলে সংগঠনটি।

শোভন বলেন, ভোট বর্জন করে তারা বিভিন্ন অভিযোগ করেছে। নির্বাচন বাতিলের দাবি জানিয়েছে। সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবে প্রশাসন।

প্রেস ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ও ডাকসুর জিএস প্রার্থী গোলাম রাব্বানী বলেন, আমরা নিজেদের জায়গা থেকে সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য কাজ করেছি। ভবিষ্যতেও এ ধারা অব্যাহত থাকবে। 

তিনি বলেন, ক্যাম্পাসে সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখার চেষ্টা করব। 

ভোট বর্জনকারী প্যানেলের নেতা-কর্মীদের উদ্দেশ্য করে রাব্বানী আরও বলেন, তারা হল প্রভোস্টের ওপর হামলা করেছে, হলের জানালা ভাঙচুর করেছে, প্রধান রিটার্নিং কর্মকর্তাকে হেনস্থা করেছে।

ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, বয়কট করার প্রয়োজন নাই, তারা যেসব কাজ করেছে তাতে তাদের প্রার্থিতা এমনিতেই বাতিল হবে। গণপরাজয়ের লজ্জা থেকে বাঁচার জন্যই তারা এমন কাজ করেছে।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি আরও বলেন, ক্যাম্পাসে পরবর্তীতে কোনও বিশৃঙ্খলা আমাদের দিক থেকে ঘটবে না। রোকেয়া হলের ব্যালট ছিনতাইয়ের ঘটনা আমাদের স্বপ্ন ডাকাতি। আর সেই ডাকাতি করেছে নুরুরা।

সন্ধ্যা ছয়টার দিকে ডাকসু নির্বাচন নিয়ে নিজেদের পরবর্তী সিদ্ধান্ত জানাবে ছাত্রলীগ।