• শুক্রবার, সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০২:৫৫ দুপুর

গাউছিয়া মার্কেটে জাবি ছাত্রীকে দোকানির মারধর

  • প্রকাশিত ০৭:১৪ রাত মার্চ ২২, ২০১৯
গাউছিয়া
শুক্রবার জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে মারধর করেন গাউছিয়া মার্কেটের এই দোকানি। ছবি: সংগৃহীত

তাকে চড় মারেন ওই দোকানি। একপর্যায়ে ঘাড় ধাক্কা দিয়ে তাকে দোকান থেকে বের করে দেওয়া হয়।

রাজধানীর গাউছিয়া মার্কেটে এক দোকানির মারধরের শিকার হয়েছেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) এক ছাত্রী। শুক্রবার বেলা আড়াইটার দিকে এই ঘটনা ঘটে। 

পণ্যের দাম নিয়ে কথাবার্তার একপর্যায়ে ইয়েলো কালেকশন নামের একটি দোকানে কর্মরত একজন প্রথমে তার সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণ এবং পরে মারধর করেন বলে জানিয়েছেন ওই শিক্ষার্থী।

ভুক্তভোগী ওই শিক্ষার্থী বলেন, শুক্রবার দুপুরে এক বান্ধবীকে নিয়ে গাউছিয়া মার্কেটে কেনাকাটা করতে যান তিনি। মার্কেটের নিচতলায় ইয়েলো কালেকশন নামে একটি দোকানে গিয়ে অলঙ্কারের দাম জানতে চাইলে পেছনে ক্যাশ কাউন্টারে বসা এক ব্যক্তি বলেন, এক দাম ১০০ টাকা। নিলে নেন, না নিলে দোকান থেকে বের হয়ে যান।

তিনি আরও জানান, এমন আচরণের কারণ জানতে চাইলে ওই দোকানি চিৎকার করে অশ্লীল ভাষায় তাকে গালিগালাজ করতে শুরু করেন। একপর্যায়ে গায়েও হাত দেওয়ার চেষ্টা করেন তিনি। বাধা দিলে তাকে চড় মারেন ওই দোকানি। একপর্যায়ে ঘাড় ধাক্কা দিয়ে তাকে দোকান থেকে বের করে দেওয়া হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ঘটনার সময় আশপাশের দোকানিরাও অভিযুক্ত দোকানির পক্ষ নিয়ে গালমন্দ করেন। তারা ওই ছাত্রীকে দ্রুত ঘটনাস্থল থেকে সরে যেতে বাধ্য করেন।

ওই ছাত্রীর ভাষ্য, গাউছিয়া মার্কেটের ঘটনার পরে বান্ধবীসহ তিনি পাশের হকার্স মার্কেটে গেলে সেখানেও কয়েকজন সাঙ্গপাঙ্গ নিয়ে তাদেরকে অনুসরণ করতে থাকেন ইয়েলো কালেকশনের ওই দোকানি। এক পর্যায়ে প্রায় আধঘণ্টার মতো তাদেরকে অবরুদ্ধ করে রাখা হয়। পরে নিউমার্কেট থানায় যোগাযোগ করা হলে ওই দুই শিক্ষার্থীকে বের করে আনে পুলিশ।

এ বিষয়ে নিউমার্কেট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতিকুল ইসলাম ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, অভিযুক্ত দোকানিকে আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। তবে এখন পর্যন্ত কেউ লিখিত অভিযোগ দেননি। অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।