• মঙ্গলবার, মে ২১, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:৩০ সকাল

ফেসবুক পোস্টে 'হাহা' দেয়ায় চবিতে ছাত্রলীগের মারামারি

  • প্রকাশিত ০৯:১৭ রাত মার্চ ৩১, ২০১৯
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়
ছবি: ইউএনবি

চবি পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক মো. আক্তারুজ্জামান জানান, ক্যাম্পাসের পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

এক ছাত্রীর ফেসবুক পোস্টে হাসির 'হাহা' রিঅ্যাক্ট দেয়ায় চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে আহত হয়েছেন দুইজন। জানান গেছে, এ সময় রাম দা, রড, লাঠিসোটা হাতে উভয়পক্ষ ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ায় লিপ্ত হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে চবি ক্যাম্পাসে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। 

রোববার চবি ক্যাম্পাসের রব হলে দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে সংঘর্ষের প্রথম সূত্রপাত হয়। এরপর শাহ আমানত ও সোহরাওয়ার্দী হলের সামনে দু’পক্ষ মুখোমুখি অবস্থান নিলে সে সময় ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার সময় চবির ২০১৮-১৯ সেশনের ইসলামের ইতিহাসের প্রথম বর্ষের ছাত্র তনয় ও ২০১৬-১৭ সেশনের অ্যারাবিকের ছাত্র জুবায়ের আহত হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ের শাটল ট্রেনের বগিভিত্তিক গ্রুপ চুজ ফ্রেন্ডস উইথ কেয়ার (সিএফসি) ও বিজয় গ্রুপের নেতা-কর্মীদের মধ্যে এ সংঘর্ষ হয়েছে। এতে দুইজন আহত হয়েছেন। বিজয় গ্রুপের তনয় নামে এক শিক্ষার্থী এক ছাত্রীর ফেসবুক পোস্টে ‘হাসির রিঅ্যাক্ট’ দেন। এর জের ধরে ওই ছাত্রীর সহপাঠী সিএফসি গ্রুপের এক নেতার সঙ্গে প্রথমে তনয়ের কথা কাটাকাটি হয়। এরপরে তারা সংঘর্ষে জড়ায়। 

এ বিষয়ে সিএফসি গ্রুপের নেতা ও চবি ছাত্রলীগের বিলুপ্ত কমিটির সহসভাপতি রেজাউল হক রুবেল বলেন, "জুনিয়রদের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝি হয়েছিল। আমরা সিনিয়রেরা বসে সমাধান করে ফেলব"।

চবি পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক মো. আক্তারুজ্জামান জানান, ক্যাম্পাসের পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।