• বৃহস্পতিবার, জুলাই ১৮, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৬:৪৯ সন্ধ্যা

ক্যাম্পে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে গোলাগুলিতে রোহিঙ্গা ডাকাত নিহত

  • প্রকাশিত ০৫:০৬ সন্ধ্যা এপ্রিল ৪, ২০১৯
কক্সবাজার

তাকে গুলি করে হত্যা করে আরেক রোহিঙ্গা ডাকাত দলের সদস্যরা

কক্সবাজারের টেকনাফ রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সৃষ্ট কোন্দলে প্রতিপক্ষের গুলিতে মোহাম্মদ হাসিম (৪৫) নামের এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) সকালসাড়ে ১০টার দিকে টেকনাফ উপজেলার নয়াপাড়া শিবিরের এইচ ব্লকে এই ঘটনা ঘটে বলে নিশ্চিত করেছেন নয়াপাড়া রোহিঙ্গা শিবিরের পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক (এসআই) আব্দুস সালাম।

নিহত হাসিম টেকনাফ উপজেলার নয়াপাড়া শরনার্থী শিবিরের এইচ ব্লকের ৬৮২ নাম্বার শেডের ২ নং রুমের বাসিন্দা পীর মোহাম্মদের ছেলে। সে রোহিঙ্গাদের কাছে হাসিম ডাকাত নামে পরিচিত।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, টেকনাফের নয়াপাড়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সৃষ্ট বিরোধের জের ধরে  অস্ত্রধারী একদল ডাকাত শিবিরের এইচ ব্লকে এসে হাসিমকে গুলি করে পালিয়ে যায়। এ সময় গুলির শব্দ শুনে আশপাশের রোহিঙ্গারা ছুটে এসে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ঐ ক্যাম্পের হাসপাতালে নেওয়া নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ঘটনা প্রসঙ্গে এসআই আব্দুস সালাম ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, "রোহিঙ্গা ক্যাম্পের এইচ ব্লকে সশস্ত্র একটি ডাকাত দলের গুলিতে আরেক রোহিঙ্গা ডাকাত নিহত হয়েছে। অভ্যন্তরীণ কোন্দলের কারণে এই ঘনা ঘটেছে বলে জানা গেছে। নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজারের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ঘটনার তদন্তে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে"।