• বুধবার, জুলাই ১৭, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৭:৩৬ রাত

কাঁচের গ্লাস ভাঙ্গায় গৃহকর্মীকে গরম খুন্তির ছ্যাঁকা

  • প্রকাশিত ০৬:২৬ সন্ধ্যা এপ্রিল ৪, ২০১৯
দিনাজপুর

এ বিষয়ে ভুক্তভোগীর পরিবার থেকে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে

দিনাজপুরের বিরামপুরে কাঁচের গ্লাস ভাঙ্গায় কিশোরী গৃহকর্মীকে গরম লোহার খুন্তির ছ্যাঁকা দিয়ে নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে অবসরপ্রাপ্ত এক সেনাসদস্যের বিরুদ্ধে।

বুধবার রাত নয়টার দিকে পৌর শহরের আনছান মাঠ এলাকায় বিরামপুর মহিলা কলেজের ইতিহাস বিভাগের প্রভাষক সামসুল আলমের বাসায় এই ঘটনা ঘটে।

বৃহস্পতিবার সকালে অভিযুক্ত সাবেক সেনাদসস্য আকরামুজ্জামানকে(৫০) আটক করে বিরামপুর থানা পুলিশ।

ভুক্তভোগী ঐ নারী জানান, সামসুল ইসলামের বাসায় তিনি গৃহকর্মী হিসেবে কাজ করতেন। তবে, যেকোনো তুচ্ছ ঘটনায় সামসুল ইসলামের শ্বশুর আকরামুজ্জামান তার উপর নানা নির্যাতন চালাতেন এবং মারধোর করতেন।   

"ঘটনার দিন রাতে একটি কাচেঁর গ্লাস ভাঙ্গার অপরাধে লোহার গরম খুন্তি দিয়ে বাম হাতে ছ্যাঁকা দেন এবং কোমরের বেল্ট দিয়ে আমার শরীরের বিভিন্নস্থানে আঘাত করেন", বলেন ভুক্তভোগী ঐ গৃহকর্মী। 

বিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, "নির্যাতিত মেয়েটির চিৎকারে এলাকাবাসী পুলিশকে খবর দেয়। পরে পুলিশ যেয়ে নির্যাতিত কিশোরীকে উদ্ধার করে বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করে। বৃহস্পতিবার সকালে অভিযুক্ত আকরামুজ্জামানকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসা হয়"।

ওসি আরো জানান, এ বিষয়ে ভুক্তভোগীর পরিবার থেকে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে আকরামুজ্জানকে আসামি করে মামলা বিরামপুর থানায় একটি দায়ের করা হয়েছে।