• রবিবার, জুলাই ২১, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০২:১৮ রাত

অস্ত্রোপচারের পরেও শঙ্কামুক্ত নন ফেনীর সেই মাদ্রাসাছাত্রী

  • প্রকাশিত ০৪:২৬ বিকেল এপ্রিল ৯, ২০১৯
ফেনীর মাদ্রাসা ছাত্রী
ঢাকা মেডিকেল কলেজের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন ফেনীর মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি। ফোকাস বাংলা

'এখন তার অবস্থা একটু ভাল। তবে সঙ্কোচন পুরোপুরি ঠিক হয়নি। সময় লাগবে।'

ফেনীর সোনাগাজীর সেই অগ্নিদগ্ধ মাদ্রাসাছাত্রীর অস্ত্রোপচার সম্পন্ন হয়েছে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে। দুই ঘণ্টাব্যাপী অপারেশনের পর চিকিৎসকরা জানান তার অবস্থা এখনও পুরোপুরি শঙ্কামুক্ত নয়। মঙ্গলবার সকাল সাড়ে দশটা থেকে সাড়ে বারোটা পর্যন্ত তার অস্ত্রোপচার করেন চিকিৎসকরা।

ওই ছাত্রীর চিকিৎসায় গঠিত মেডিক্যাল বোর্ডের প্রধান জানান,  “এই অস্ত্রোপচারের নাম এসক্যারোটোমি। সম্পূর্ণ পুড়ে যাওয়া রোগীর ক্ষেত্রে এই চিকিৎসা পদ্ধতি ব্যবহৃত হয়। পুড়ে গেলে মানুষের শরীর কুঁচকে যায়। কোঁচকানো অবস্থা ঠিক করতে এই অস্ত্রোপচার করা হয়।”

তিনি বলেন, “এখন তার অবস্থা একটু ভাল। তবে সঙ্কোচন পুরোপুরি ঠিক হয়নি। সময় লাগবে।”

অগ্নিদগ্ধ ছাত্রীর অবস্থা সম্পর্কে জানতে চাইলে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজের বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইউনিটের প্রধান সমন্বয়ক ডা. সামন্ত লাল সেন ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, অল্প সময়ের ব্যবধানেই এ ধরনের রোগীর অবস্থার অবনতি ঘটতে পারে।

“আপনি সকালে তাকে ভাল দেখলেন, কিন্তু বিকেলে আবার তার অবস্থার অবনতি হতে পারে,” যোগ করেন তিনি।