• বৃহস্পতিবার, জুলাই ১৮, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৬:৪৯ সন্ধ্যা

ময়মনসিংহে নিজ মেয়েকে ধর্ষণ করলেন বাবা

  • প্রকাশিত ০৬:১৩ সন্ধ্যা এপ্রিল ১৩, ২০১৯
ধর্ষণ
প্রতীকী ছবি

শুক্রবার রাতে ঐ ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে পুলিশ 

ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা উপজেলায় নিজের শিশুকন্যাকে ধর্ষণের অভিযোগে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। উপজেলার দুল্লা ইউনিয়ন থেকে শুক্রবার রাতে তাকে গ্রেফতার করা হয় বলে নিশ্চিত করেছেন মুক্তাগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আলী মাহমুদ।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গ্রেফতার ঐ ব্যক্তির নাম আলাল হুদা। তিনি পেশায় একজন অটোচালক। তার তিন কন্যা সন্তান রয়েছে।  

ওসি মোহাম্মদ আলী মাহমুদ জানান, "গত সাত মাস ধরে নিজের মেয়েকে ধর্ষণ করে আসছিল কুড়িপাড়া গ্রামের আলাল হুদা। মেয়েটি স্থানীয় একটি স্কুলের ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী।"

তিনি আরো বলেন, “নানা প্রলোভন ও ভয়ভীতি দেখিয়ে দীর্ঘদিন ধরে এই কাজ করে আসছিল আলাল। হাজার আকুতিতেও বাবার লালসা থেকে রেহাই পায়নি হতভাগ্য মেয়েটি। এক পর্যায়ে ঘটনাটি সে তার মাকে জানায়। মেয়ের মুখে এই ঘটনা শুনে প্রতিবাদ করেন আলালের স্ত্রী। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে মা-মেয়ে দু'জনকেই বিভিন্ন সময়ে মারধর  শুরু করেন আলাল আর নীরবে সহ্য করতে থাকে মা ও মেয়ে"।

এক পর্যায়ে স্বামীর এমন বর্বোরচিত আচরণে অতিষ্ঠ হয়ে ৭ দিন আগে তিন মেয়েকে নিয়ে আলালের বাড়ি ত্যাগ করেন তার স্ত্রী। পরে অনেক অনুরোধ করে শুক্রবার স্ত্রী এবং মেয়েদের বাড়ি ফেরান আলাল।

তবে, বাড়িতে ফিরে আসার পরও স্বামীর আচরণের কোন পরিবর্তন না দেখে নিরুপায় হয়ে স্থানীয় এক ইউপি সদস্যকে বিষয়টি খুলে বলেন আলালের স্ত্রী।   

ওসি মোহাম্মদ আলী মাহমুদ জানান, "ঐ ইউপি সদস্য ঘটনা জানার পর বিকেলে বিষয়টি পুলিশকে অবহিত করেন। পরে রাত ৯টার আলাল হুদাকে গ্রেপ্তার করা হয়”।

এ ঘটনায় আলালের স্ত্রী নিজে বাদী হয়ে একটি ধর্ষণের মামলা দায়ের করেছেন। তিনি আলালের সর্বোচ্চ শাস্তি দাবি করেছেন।