• সোমবার, অক্টোবর ২১, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০২:১৮ দুপুর

আনিসুল হক: নুসরাত হত্যা মামলা দ্রুত নিষ্পত্তি করা হবে

  • প্রকাশিত ০৩:৩৭ বিকেল এপ্রিল ২৫, ২০১৯
আইনমন্ত্রী আনিসুল হক
আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। ফাইল ছবি।

"সিলেটের শিশু সামিউল আলম রাজনকে পিটিয়ে হত্যা মামলাটি যেমন দ্রুত নিষ্পত্তি করা হয়েছিল, একইভাবে নুসরাত হত্যা মামলাটিও নিষ্পত্তি করা হবে"

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক জানিয়েছেন, ফেনীর মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে পুড়িয়ে হত্যার ঘটনায় দায়ের করা মামলাটি দ্রুত নিষ্পত্তি করা হবে। 

তিনি বলেন, "সিলেটের শিশু সামিউল আলম রাজনকে পিটিয়ে হত্যা মামলাটি যেমন দ্রুত নিষ্পত্তি করা হয়েছিল, একইভাবে নুসরাত হত্যা মামলাটিও নিষ্পত্তি করা হবে। এই মামলার চার্জশিট দাখিলের পরপরই দ্রুত পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে।'

বৃহস্পতিবার (২৫ এপ্রিল) দুপুরে সচিবালয়ে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে ‘জাতীয় আইনগত সেবা দিবস’ উপলক্ষে আয়োজিত এক মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

আইনমন্ত্রী বলেন, "মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামিদের মামলা আপিল বিভাগে দ্রুত নিষ্পত্তির লক্ষ্যে অ্যাটর্নি জেনারেলের মাধ্যমে পদক্ষেপ নেওয়া হবে।"

উল্লেখ্য, নুসরাত জাহান রাফি ফেনীর সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার আলিমের পরীক্ষার্থী ছিলেন। ওই মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজ উদ্দৌলার বিরুদ্ধে ওই ছাত্রীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ ওঠে। নুসরাতের মা শিরিন আক্তার বাদী হয়ে গত ২৭ মার্চ সোনাগাজী থানায় মামলা দায়ের করেন। এরপর অধ্যক্ষকে গ্রেফতার করে পুলিশ। মামলা তুলে নিতে বিভিন্নভাবে নুসরাতের পরিবারকে হুমকি দেওয়া হচ্ছিল। ৬ এপ্রিল সকাল ৯টার দিকে আলিম পর্যায়ের আরবি প্রথমপত্রের পরীক্ষা দিতে সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে যান নুসরাত। এ সময় তাকে কৌশলে একটি বহুতল ভবনে ডেকে নিয়ে যায় অধ্যক্ষের ভাগ্নি পপি। সেখানে তার গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন দেওয়া হয়। ১০ এপ্রিল রাত সাড়ে ৯টায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে মারা যান নুসরাত।