• বুধবার, ফেব্রুয়ারি ১৯, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:১১ দুপুর

স্বামীকে আটকে রেখে গৃহবধূকে 'গণধর্ষণ', গ্রেপ্তার ৪

  • প্রকাশিত ০৬:৫৫ সন্ধ্যা এপ্রিল ৩০, ২০১৯
ধর্ষণ
প্রতীকী ছবি

ওই নারী জানান, সোমবার রাতে তার স্বামীকে নিয়ে তুন বাসা খুঁজতে গেলে স্থানীয় কয়েকজন তাদের গতিরোধ করে। এরপর স্বামীকে আটকে রেখে পাশের বাঁশঝাড়ে নিয়ে গিয়ে তাকে ধর্ষণ করা হয়।

ঢাকার উপকণ্ঠে আশুলিয়া এলাকায় স্বামীকে আটকে রেখে এক নারী পোশাক শ্রমিককে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে চারজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। 

গতকাল সোমবার রাতে এ ঘটনা ঘটে। পরে ওই নারী শ্রমিক আশুলিয়ার থানা অভিযোগ করেন। 

আজ মঙ্গলবার সকালে অভিযান চালিয়ে চারজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। দুপুরের দিকে তাদের ১০ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে। 

গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন, আশুলিয়ার কাঠগড়া এলাকার সোহরাব শিকদারের ছেলে নূর মোহাম্মদ পলাশ (২১), একই এলাকার সাহাবুদ্দীন এর ছেলে মো. সুজন শিকদার (২০), হাজী আব্দুল সাত্তারের ছেলে মো. ফেরদৌস (২৫) ও ধামরাইয়ের জাঙ্গালিয়া গ্রামের মৃত মো. আলীর ছেলে কবির হোসেন (৩০)।

এ ঘটনায় অভিযুক্ত রাজ্জাক (৩০) নামের আরও একজন পলাতক রয়েছেন।

ভুক্তভোগী ওই নারী জানান, সোমবার রাতে তার স্বামীকে নিয়ে তুন বাসা খুঁজতে গেলে স্থানীয় কয়েকজন তাদের গতিরোধ করে। এরপর স্বামীকে আটকে রেখে পাশের বাঁশঝাড়ে নিয়ে গিয়ে তাকে ধর্ষণ করা হয়।

এ ব্যপারে আশুলিয়া থানার পরিদর্শক (অপারেশন) মোহাম্মদ জিয়াউল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, নির্যাতনের শিকার নারী শ্রমিককে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) পাঠানো হয়েছে।