• বুধবার, জুন ২৬, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:০৫ দুপুর

বৃদ্ধা মিনতি করেছিলেন, 'ছেড়ে দাও, আমি আল্লাহর নবীর রোজা রাখছি'

  • প্রকাশিত ০৯:১৫ রাত মে ২২, ২০১৯
গণধর্ষণ
প্রতীকী ছবি

এলাকাবাসী কয়েকজন জানায়, বয়সের ভারে অন্ধ ওই বৃদ্ধা চলাফেরা করতে পারেন না। তাদের কাছে ধর্ষণের ঘটনার বর্ণনা দিতে গিয়ে বৃদ্ধা খুব কাঁদছিলেন।

টাঙ্গাইলের মধুপুর উপজেলায় এবার শতাধিক বছরের এক বৃদ্ধাকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এ ঘটনা ঘটে। 

ধর্ষণের ঘটনা সঙ্গে জড়িত অভিযোগে ১৫ বছর বয়সী এক কিশোরকে খুঁজছে পুলিশ। সে বৃদ্ধার ঘরে ঢুকে মুখ বেঁধে তাকে ধর্ষণ করে বলে জানা গেছে। 

এলাকাবাসী কয়েকজন জানায়, বয়সের ভারে অন্ধ ওই বৃদ্ধা চলাফেরা করতে পারেন না। তাদের কাছে ঘটনার বর্ণনা দিতে গিয়ে বৃদ্ধা খুব কাঁদছিলেন। ঠিকমতো কথাও বলতে পারছিলেন না।  

ওই বৃদ্ধার বরাত দিয়ে স্থানীয়রা আরও জানান, ধর্ষণের সময় বৃদ্ধা বারবার বলছিলেন, 'আমাকে ছেড়ে দাও। আমি আল্লাহর নবীর রোজা রাখছি।'  

এদিকে সম্মানের ভয়ে ভুক্তভোগির পরিবার তাকে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে নেয়নি। 

মধুপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তারিক কামাল জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে অভিযুক্ত কিশোর পালিয়ে যায়। তাকে আটকের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। ওই বৃদ্ধাকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হবে।