• শুক্রবার, ডিসেম্বর ০৬, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৬:৫১ সন্ধ্যা

বাস-ট্রাকের ধাক্কায় হাত হারালেন ফিরোজ

  • প্রকাশিত ০৮:৩৪ সকাল জুন ২৯, ২০১৯
ফিরোড
রাজশাহীর পবা উপজেলায় বাস ও ট্রাকের ধাক্কায় ফিরোজ সরকার (২৫) নামের এক কলেজ ছাত্রের হাত বিচ্ছিন্ন হয়। ছবি : ঢাকা ট্রিবিউন

ফিরোজ সরকার রাজশাহী কলেজের সমাজকর্ম বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী।

রাজশাহীর পবা উপজেলায় বাস ও ট্রাকের ধাক্কায় ফিরোজ সরকার (২৫) নামের এক কলেজ ছাত্রের হাত বিচ্ছিন্ন হয়েছে। 

গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় ৬টার দিকে উপজেলার কাটাখালী পৌরসভার সামনে রাজশাহী-ঢাকা মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

ফিরোজ সরকার রাজশাহী কলেজের সমাজকর্ম বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী। তিনি বগুড়ার নন্দীগ্রামের নামইড গ্রামের মাহফুজুর রহমানের ছেলে।  

ফিরোজকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের ৩১ নম্বর ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়েছে। 

রামেক হাসপাতাল পুলিশ বক্সের ইনচার্জ রফিকুল ইসলাম জানান, ফিরোজ বাসে করে বগুড়া থেকে রাজশাহীতে আসছিলেন। আর ট্রাকটি রাজশাহী থেকে পুঠিয়ার বানেশ্বরের দিকে যাচ্ছিলো। পথে কাটাখালীর পৌরসভার সামনে আসলে বাস ও ট্রাকটি পাশাপাশি অতিক্রম করার সময় ধাক্কা লাগে। এতে বাসে থাকা ফিরোজের হাত কনুই থেকে কেটে পড়ে যায়।

ফিরোজের নানা নুরুল ইসলাম জানান, বগুড়ার নামইডগ্রামের নন্দীগ্রাম থেকে রাজশাহী আসছিলেন ফিরোজ। পথে নাটোরে একটি বাসে ওঠেন তিনি। বাসে নুরুলের আগের সিটের জানালার পাশে বসেছিলেন ফিরোজ। পথে কাটাখালী পৌরসভার সামনে পৌঁছালে একটি ট্রাক বাসকে অতিক্রম করার সময় চাপা দেয়। এতে কাটা পড়ে ফিরোজের হাত।