• শনিবার, অক্টোবর ১৯, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:৫০ সকাল

স্কুলছাত্রীকে উত্ত্যক্তের অভিযোগ করায় সংখ্যালঘু পরিবারের উপর হামলা

  • প্রকাশিত ১০:১৩ রাত জুলাই ৬, ২০১৯
টাঙ্গাইল

মেয়েকে উত্ত্যক্ত করার প্রতিবাদ করলে বাড়ি যেয়ে বাবাকে পেটাতে থাকে অভিযুক্ত সজিব

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে স্কুলছাত্রীকে উত্ত্যক্তের অভিযোগ করায় সংখ্যালঘু এক পরিবারের সদস্যদের পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ উঠেছে। শনিবার বিকেলে উপজেলার ফতেপুর ইউনিয়নের থলপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। 

এলাকাবাসী জানান, থলপাড়া গ্রামের অষ্টম শ্রেণীর এক স্কুলছাত্রীকে একই গ্রামের মোশারফ হোসেনের ছেলে সজিব মিয়া (২৫) মাঝে মধ্যেই উত্ত্যক্ত করতো। শনিবার সকালে স্কুলে যাওয়ার পথে ওই ছাত্রীকে তার বাড়ির পাশের রাস্তাতেই সজিব জোরপূর্বক মোটরসাইকেলে উঠাতে চায়। এতে ভয় পেয়ে ওই শিক্ষার্থী দৌড়ে বাড়িতে ঢুকে যায়। পরে পরিবারের লোকজন একই গ্রামের মাতাব্বর বারেক মিয়াকে বিষয়টি জানান। তিনি ঘটনাটি সজিবের পরিবারকে জানান।

এতে সজিব ক্ষিপ্ত হয়ে ধারালো অস্ত্র নিয়ে বিকেলে ওই শিক্ষার্থীর বাড়ি যেয়ে তাণ্ডব চালায়। সেখানে পৌছে সে প্রথমে মেয়েটির বাবাকে মারতে থাকে। তা দেখে মেয়েটির ভাই এগিয়ে আসলে সজিব তাকেও বেধড়ক পেটাতে থাকে।

পরে ভয়ে সে দৌড়ে ঘরে ঢুকলে দরজা ভেঙে ঘর থেকে বের করে সজিব তার গায়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে। এমনকি মেয়েটির দাদিকেও পিটিয়ে আহত করে সে।

ওই ছাত্রীর বাবা জানান, প্রাণ বাঁচাতে তিনি ঝিনাই নদে লাফ দেন। পরে বিষয়টি এলাকাবাসী জানতে পারেন। সজিবের ভয়ে বর্তমানে পালিয়ে রয়েছেন।

এব্যাপারে মির্জাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ কে এম মিজানুল হক বলেন, "এব্যাপারে সন্ধ্যায় মেয়ের বাবার অভিযোগ দিয়েছেন। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।"