• শনিবার, ডিসেম্বর ১৪, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:৪২ দুপুর

‘ছেলেধরা’ সন্দেহে রোহিঙ্গা তরুণীকে গণ‌পিটুনির পর পুলিশ সোপর্দ

  • প্রকাশিত ০৫:১৯ সন্ধ্যা জুলাই ১৯, ২০১৯
বান্দরবান

বাজারের মধ্যে দৌঁড়ে যাওয়ার সময় স্থানীয়রা ছেলেধরা সন্দেহে তাকে আটক করে পিটুনী দেয়

বান্দরবানে ছেলেধরা সন্দেহে রোকেয়া আক্তার (১৮) নামে এক রোহিঙ্গা তরুণীকে গণ‌পিটুনীর পর পু‌লিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয় জনতা।

শুক্রবার (১৯ জুলাই) দুপুরে সদরের বালাঘাটা বাজারে এ ঘটনা ঘটে। তবে পুলিশ বলছে, কেউ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে এ ঘটনা ঘটিয়েছে।

বাংলা ট্রিবিউনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, দুপুরে হঠাৎ করে ওই তরুণী বাজারের মধ্যে দৌঁড়ে যাওয়ার সময় স্থানীয়রা ছেলেধরা সন্দেহে তাকে আটক করে পিটুনী দেয়। পরে পু‌লিশে খবর দি‌লে তারা এসে রোকেয়াকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। 

বান্দরবান সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শহিদুল ইসলাম চৌধুরী জানান, প্রাথমিক তদন্তে জানা গেছে, একটি সংঘবদ্ধ চক্র ওই রোহিঙ্গা তরুণীকে কক্সবাজারের উখিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে বান্দরবানে নিয়ে এসে ছে‌লেধরা প্রমাণ করতে বালাঘাটা বাজারে ব্যাপক মারধর করে। সদর থানার পুলিশ খবর পে‌য়ে তাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। এ বিষয়ে আরও তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।