• সোমবার, সেপ্টেম্বর ১৬, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:২৪ রাত

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৩ শিক্ষার্থী ডেঙ্গুতে আক্রান্ত

  • প্রকাশিত ০৭:৩৭ রাত আগস্ট ১, ২০১৯
এডিস মশা
এডিস মশা। ফাইল ছবি।

বৃহস্পতিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেল সেন্টারে ডেঙ্গু সনাক্তে  স্থাপিত নতুন যন্ত্রের মাধ্যমে পরীক্ষা করান ১৬৮ শিক্ষার্থী

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) মেডিকেল সেন্টারে ডেঙ্গু সনাক্তকরণ যন্ত্র স্থাপনের প্রথমদিনেই ১৩ শিক্ষার্থীর ডেঙ্গু ধরা পড়েছে।

বৃহস্পতিবার (১ জুলাই) বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৬৮ শিক্ষার্থী ডেঙ্গু সনাক্তে  স্থাপিত নতুন এই যন্ত্রের মাধ্যমে পরীক্ষা করান। এর আগে বুধবার ডেঙ্গু সনাক্তকরণ পরীক্ষার জন্য এই ১৬৮ জন শিক্ষার্থী রক্তের নমুনা জমা দেন। পরীক্ষা শেষে এদেরমধ্যে ১৩ জনের ডেঙ্গু সনাক্ত করা হয়।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় মেডিকেল সেন্টারের চিফ মেডিকেল অফিসার ডা. সারওয়ার জাহান মুত্তাফি বলেন, "বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা এখন থেকে বিনামূল্যে রক্তের প্লাটিলেটের পরিমাণ এবং ডেঙ্গু সনাক্তের পরীক্ষা করাতে পারবেন। এই যন্ত্রের মাধ্যমে প্রতিদিন অন্তত ১৫০ জন এই পরীক্ষা করাতে পারবেন।"

তবে, ডেঙ্গু সনাক্তকরণ যন্ত্র আসলেও তা প্রয়োজনের তুলনায় খুবই কম বলে উল্লেখ করেন ঢাবি মেডিকেল সেন্টারের প্রধান। তিনি বলেন, "প্রতিদিন সকাল ৮টা থেকে আমরা শিক্ষার্থীদের এই সেবা দিচ্ছি। তবে মেডিকেল সেন্টারে অত্যন্ত ভিড় থাকায় আমাদের এতো প্রচেষ্টা সত্ত্বেও শিক্ষার্থীদের আমাদের সেবা দিয়ে সন্তুষ্ট করা যাচ্ছে না।"

উল্লেখ্য, রাজধানীতে চলমান ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাবে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ায় গত রবিবার বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে আনা হয় ডেঙ্গু সনাক্তকরণ যন্ত্রটি। এর আগে ঢাবি'র ১৫০ জন শিক্ষার্থী ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন বলে একটি খবর ছড়িয়ে পড়লে আতঙ্ক দেখা দেয় শিক্ষার্থীদের মাঝে। এসময় ডেঙ্গু থেকে বাঁচতে বিশ্ববিদ্যালয় ছুটি ঘোষণার দাবি তোলেন তারা।