• বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ১২, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১২:১৪ দুপুর

ভারত থেকে ফেরত এলো ২৫ লাখ টাকার মাছ

  • প্রকাশিত ০৮:১০ রাত আগস্ট ৫, ২০১৯
সীমান্ত
আগরতলা-আখাউড়া সীমান্ত। ছবি : সংগৃহীত

মো. শফিকুল ইসলাম বলেন, "আমাদের আগে থেকে না জানিয়ে ভারত হঠাৎ করে ইলেকট্রনিক ডাটা ব্যাচ চালু করেছে।"

ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের আগরতলায় সার্ভারজনিত সমস্যার কারণে রপ্তানির কয়েক ঘণ্টা পর ফেরত এসেছে প্রায় ৩০ টন মাছ। ওই মাছের দাম প্রায় ২৫ লাখ টাকা বলে জানা গেছে। সোমবার (৫ আগস্ট) সকাল ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। 

মাছের সিএন্ডএফ (ক্লেয়ারিং এন্ড ফরোয়ার্ডিং) করা ইমাম ব্রাদার্স এর স্বত্ত্বাধিকারি মো. আব্বাস উদ্দিন ভূইয়া জানান, আজ সকাল ১০টার দিকে প্রায় ৩০ টন দেশীয় মাছ রপ্তানি করা হয়। রপ্তানির পর ভারত থেকে জানানো হয়, সেখানে অনলাইনে নতুন পদ্ধতি চালু হয়েছে। কিন্তু ওই পদ্ধতির সার্ভার কাজ করছে না। ফলে তারা মাছ গ্রহণ করতে পারবেন না। এ অবস্থায় বিকেল সাড়ে ৫টায় মাছগুলো ফেরত আনা হয়। ফলে ব্যবসায়িরা ক্ষতির সম্মুখীন হবেন। মাছগুলো ভালো থাকলে আগামীকাল রপ্তানির চেষ্টা করা হবে।

আখাউড়া স্থলবন্দর আমদানি-রপ্তানিকারক অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মো. শফিকুল ইসলাম বলেন, "আমাদের আগে থেকে না জানিয়ে ভারত হঠাৎ করে ইলেকট্রনিক ডাটা ব্যাচ চালু করেছে। তাই আমরা পুরোনো পদ্ধতিতে আজ সকালে মাছ রপ্তানি করেছি। নতুন পদ্ধতির কথা আগে থেকে জানানো হলে আমাদের ব্যবসায়ীরা নতুন প্রক্রিয়ায় মাছ রপ্তানি করতেন। মাছগুলো ফেরত আসায় ব্যবসায়িরা লোকসানের মুখে পড়বে। এ নিয়ে পরবর্তী করণীয় নির্ধারণ করতে আমরা বৈঠক করব।" 

আখাউড়া স্থলবন্দরের কাস্টমস কর্মকর্তা রাজীব রায় বলেন, "সকালে মাছগুলো রপ্তানির সব কাগজপত্র তৈরি করা হয়। পরে জানানো হয়, সেখানে নতুন পদ্ধতির কারণে মাছগুলো গ্রহণ করতে পারেনি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। আমাদের পক্ষ থেকে পুরোনো পদ্ধতিতে নেওয়ার অনুরোধ করা হলেও তারা নেননি। যে কারণে ব্যবসায়িরা লোকসানের মুখোমুখি হবেন।"