• মঙ্গলবার, অক্টোবর ১৫, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১২:৪৮ রাত

সিরাজগঞ্জে বাসের ধাক্কায় সাংবাদিক দম্পতি নিহত

  • প্রকাশিত ০১:০১ দুপুর আগস্ট ১১, ২০১৯
মৃত্যু
প্রতীকী ছবি

নিহতরা হলেন, বগুড়া থেকে প্রকাশিত দৈনিক সাতমাথা পত্রিকার সাবেক রায়গঞ্জ প্রতিনিধি লক্ষীখোলা গ্রামের বাসিন্দা রফিকুল ইসলাম জিন্নাহ ও তার স্ত্রী মোরশেদা খাতুন

সিরাজগঞ্জের রায়গঞ্জ উপজেলার দুরপাল্লার বাসের ধাক্কায় সাংবাদিক দম্পতি নিহত হয়েছেন। 

শনিবার (১০ আগস্ট) সকালে সিরাজগঞ্জের রায়গঞ্জ উপজেলার ঢাকা-বগুড়া মহাসড়কের গদাইপুর জোড়ব্রীজ এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, বগুড়া থেকে প্রকাশিত দৈনিক সাতমাথা পত্রিকার সাবেক রায়গঞ্জ প্রতিনিধি লক্ষীখোলা গ্রামের বাসিন্দা রফিকুল ইসলাম জিন্নাহ ও তার স্ত্রী মোরশেদা খাতুন। 

রায়গঞ্জ থানার ওসি পঞ্চনন্দ সরকার ও রায়গঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের ভারপ্রাপ্ত স্টেশন অফিসার সেরাজুল ইসলাম জানান, “সকালে রায়গঞ্জ উপজেলার লক্ষীখোলা বাড়ি থেকে সাংবাদিক দম্পতি ব্যটারিচালিত ভ্যানযোগে গাদাইপুর যাচ্ছিলেন। ঢাকা থেকে নওগাঁগামী স্কাইলাইন নামের একটি যাত্রীবাহী সিরাজগঞ্জ জেলা শহর হয়ে রায়গঞ্জের ভেতর দিয়ে যাচ্ছিল। মহাসড়কে ওঠার পথে বাসটি গাদাইপুরে ভ্যানসহ তাদের চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই নিহত হন সাংবাদিক স্ত্রী মোরশেদা খাতুন।

খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে সাংবাদিক রফিকুল ইসলামকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠান। পরে গুরুতর অবস্থায় বগুড়া শজিমেক হাসপাতালে নেয়া হয়। চিকিৎসারত অবস্থায় সেখানে তার মৃত্যু ঘটে। পুলিশ ঘাতক বাস বা তার চালককে ধরতে পারেনি।

এদিকে, ঈদুল ফিতর উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম পারে গত ক’দিন থেকে যানজটের কারণে সেতুর পশ্চিমে মুলিবাড়ি, নলকা ও নলকা দিয়ে ঢাকা ও উত্তরের বাসগুলো সিরাজগঞ্জ জেলা শহরের ভিতর দিয়ে রায়গঞ্জ ও কাজিপুর উপজেলার মধ্যদিয়ে বগুড়া-নগরবাড়ি মহাসড়কে উঠে। জেলার আঞ্চলিক সড়কগুলো ভারী ও দূরপাল্লার যানবাহনের চলাচলের উপযোগী নয়। অবৈধ হলেও গায়ের জোরে জেলার আঞ্চলিক সড়ক দিয়ে গত ক’দিন থেকে চলছে এসব দুরপাল্লার ভারী যানবাহন। জেলা ট্রাফিক বিভাগ এবং রায়গঞ্জ ও কাজিপুর থানা পুলিশ বিষয়টি দেখেও দেখছে না। তাদের উদাসীনতায় অবশেষে বাসের ধাক্কায় মারা গেলেন সাংবাদিক দম্পতি।